০৭:২৮:৪৮ শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৭

সর্বশেষ সংবাদ :

     • তামিমের অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়ে বিশাল জয় পেল পাখতুনস     • টি-১০ লিগে দুর্দান্ত হাফসেঞ্চুরি করে ৪৬ লাখ টাকা দামের ঘড়ি জিতলেন তামিম!     • টি-১০ লিগে তামিমের চার-ছক্কার ঝড়: অবশেষে ১১১ রান!     • শোয়েব মালিকের ব্যাটিং ঝড়, হেরে গেল সাকিবের দল     • টি-১০ লিগে ব্যাটিংয়ে নেমেই শুরুতে বাউন্ডারি মারলেন তামিম: চলছে চার-ছক্কার তাণ্ডব!     • ‘বাংলাদেশের আশা জাতিসংঘে রোহিঙ্গা ইস্যু উত্থাপন করবে ভারত’     • সেদিন লন্ডনে যা বলেছিলেন বঙ্গবন্ধু     • টসে জিতে ব্যাটিংতে আফ্রিদি-তামিমের পাখতুনস     • ‘বেগম জিয়ার অবৈধ সম্পত্তি নিয়ে মির্জা ফখরুলের মনেও সন্দেহ’     • ৬ বলে ৬ ছক্কা, ৬৯ বলে ১৫৪ জাদেজার

শনিবার, ১২ আগস্ট, ২০১৭, ০৯:০০:২৩

গরু রক্ষা করতে গিয়ে ভারতীয় চাষিরই ক্ষতি, বলল সরকারি সমীক্ষা

গরু রক্ষা করতে গিয়ে ভারতীয় চাষিরই ক্ষতি, বলল সরকারি সমীক্ষা

আন্তর্জাতিক  ডেস্ক: গোরক্ষায় ভারতীয় চাষিরই ক্ষতি, বলল সরকারি সমীক্ষা , গরু রক্ষা করতে গিয়ে বিপাকে পড়বেন কৃষকরা়। এত দিন এই আশঙ্কার কথা বলছিল কৃষক সংগঠনগুলি। তাতে সায় দিচ্ছিলেন অর্থনীতিবিদরাও। এ বার খাস অর্থ মন্ত্রকের অন্দরমহল থেকেই সেই সতর্কবার্তা দেওয়া হল।

অর্থ মন্ত্রকের পক্ষ থেকে আজ যে আর্থিক সমীক্ষা প্রকাশ করা হয়েছে, সুকৌশলে বলা হয়েছে, গবাদি পশু জবাইয়ে পুরোপুরি নিষেধাজ্ঞা টানা হলে সব থেকে ক্ষতিগ্রস্ত হবেন কৃষকরাই। সমীক্ষার কোথাও সরাসরি গবাদি পশু জবাইয়ে নিষেধাজ্ঞা বা গোরক্ষক বাহিনীর উল্লেখ করা হয়নি।

কিন্তু বলা হয়েছে, কর্মক্ষমতা হারানোর পরে গবাদি পশুর দামের উপরেও পশুপালকদের রুটিরুজি নির্ভর করে। এমনিতেই কৃষি থেকে আয় পড়তির দিকে। কোনও 'সামাজিক নীতি'-র জেরে পশুর মাংস বেচে আয় বন্ধ হলে এবং বুড়িয়ে যাওয়া গবাদি পশুকে বসিয়ে খাওয়াতে হলে, চাষি-পশুপালকদের আয় আরও কমবে। এই সব 'সামাজিক নীতির' ফলে সমাজে ক্ষতিই হবে।

আর্থিক সমীক্ষা তৈরি করেন অর্থ মন্ত্রকের মুখ্য অর্থনৈতিক উপদেষ্টা। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি তা সংসদে পেশ করেছেন। মুখ্য অর্থনৈতিক উপদেষ্টা অরবিন্দ সুব্রহ্মণ্যনকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, এই 'সামাজিক নীতি' কি গবাদি পশু জবাইয়ে নিষেধাজ্ঞা? তাঁর জবাব, ''এই সব প্রশ্ন করে আমাকে বিপদে ফেলবেন না।'' কিন্তু আর্থিক সমীক্ষায় গো-জবাই রদ ঘিরে বিপদের কথা উল্লেখ করায় অনেকেরই বক্তব্য, সঙ্ঘ-পরিবারের উগ্রহিন্দুত্ব নিয়ে মোদী সরকারের মধ্যেই আপত্তি রয়েছে।

মোদী ক্ষমতায় আসার পর থেকেই গোমাংস নিয়ে বাড়াবাড়ি শুরু। এক দিকে গোমাংস রাখার অভিযোগে একের পর এক পিটিয়ে খুন। অন্য দিকে গোমাংসে পুরোপুরি নিষেধাজ্ঞা টানার চেষ্টা। অভিযোগ ওঠে, সরকার মানুষের খাদ্যাভাস নিয়ন্ত্রণ করতে চায়।

কিন্তু তাতেও না থেমে হাটেবাজারে কোনও গবাদি পশুই জবাইয়ের উদ্দেশ্যে কেনাবেচা করা যাবে না বলে নিয়ম জারি করেছিল কেন্দ্র। সুপ্রিম কোর্ট তার উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। তার আগেই প্রতিবাদের ঝড় উঠেছিল কৃষক, পশুপালক, মাংস রফতানি ও চর্ম শিল্পমহল থেকে। এ বার সরকারের অন্দরমহলেই আপত্তি উঠল।

সিপিএমের কৃষক সভার নেতা হান্নান মোল্লার যুক্তি, ''কৃষকদের আয়ের ৭০ ভাগ আসে জমি থেকে। বাকিটা পশুপালন থেকে। চাষের ক্ষতি সামলাতে না পেরে কৃষকরা আত্মহত্যা করছেন। দুধ দেওয়া বা মাঠে হাল টানা বন্ধ করার গরু-মোষ পুষতে হলে তার খাইখরচ কোথা থেকে আসবে!''

জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতির অধ্যাপক বিকাশ রাওয়ালের বক্তব্য, ''বছরে ৩.৭ কোটি পুরুষ গরু-মোষ জন্ম হয়। জবাই বন্ধ হলে এদের খাবারের পিছনে বছরে ৫.৪ লক্ষ কোটি টাকা খরচ।'' রাওয়ালের প্রশ্ন, এই আর্থিক দায়ভার কি সরকার বইতে রাজি!-আনন্দ বাজার

এমটিনিউজ২৪/এম.জে



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


‘অন্তর জ্বালা মুক্তির পর আমাকে নিয়ে আলোচনা হবে’

‘অন্তর-জ্বালা-মুক্তির-পর-আমাকে-নিয়ে-আলোচনা-হবে’

‘তিনি তাঁর মায়ের দোয়ার বরকতেই আজ পবিত্র কাবা শরিফের ইমাম হয়েছেন।’

‘তিনি-তাঁর-মায়ের-দোয়ার-বরকতেই-আজ-পবিত্র-কাবা-শরিফের-ইমাম-হয়েছেন।’

যে সহজ আমলে রুজি-রোজগার বাড়ে

যে-সহজ-আমলে-রুজি-রোজগার-বাড়ে ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


প্রতারক স্বামীর সাথে পপির যে গল্প সিনেমাকেও হার মানায়!

প্রতারক-স্বামীর-সাথে-পপির-যে-গল্প-সিনেমাকেও-হার-মানায়-

বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল দূতাবাস ভবনের যাত্রা শুরু!

বিশ্বের-সবচেয়ে-ব্যয়বহুল-দূতাবাস-ভবনের-যাত্রা-শুরু-

এই ৯টি টিপস জানলে মাছ কিনতে গিয়ে কখনো ঠকবেন না

এই-৯টি-টিপস-জানলে-মাছ-কিনতে-গিয়ে-কখনো-ঠকবেন-না এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


দশ বছরের বড় যুবতী ভাবির সঙ্গে নবম শ্রেণির ছাত্রের...

বিরাট-কোহলির পর এবার সালমান-ক্যাটরিনা বিয়ে?

সবচেয়ে বিপদের বন্ধুকে হারিয়ে ব্যথিত মাশরাফি- স্কয়ার হাসপাতালে মারা গেলেন তিনি!

মাশরাফি কতটা সাধারণ মানুষ আবারো প্রমাণ করলেন, যা বললেন সেই ৫ কোটি টাকার গাড়ি নিয়ে

পাঠকই লেখক


এলোমেলো স্মৃতিগুলো

এলোমেলো-স্মৃতিগুলো

বিজয়ের এই দিনে

বিজয়ের-এই-দিনে

মাটির এই দেহখানি

মাটির-এই-দেহখানি পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ