০৫:০০:০৭ বুধবার, ১৭ জানুয়ারী ২০১৮


শুক্রবার, ১২ জানুয়ারী, ২০১৮, ০৬:৫৭:৫৭

সৌদি স্পেশাল ফোর্সের ক্যাম্পে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা

সৌদি স্পেশাল ফোর্সের ক্যাম্পে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ইয়েমেনের হাউছি আনসারুল্লাহ বিদ্রোহীরা সৌদি আরবের স্পেশাল ফোর্সের একটি ক্যাম্পে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে হামলা চালিয়েছে। দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় সীমান্তবর্তী নাজরান প্রদেশের ওই সেনা ক্যাম্পে মূলত গানশিপ রাখা হতো।

হাউছিরা বৃহস্পতিবার জানিয়েছে, কাহের এম-২ ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে ওই ক্যাম্পে হামলা চালানো হয়েছে তবে এ বিষয়ে তারা বিস্তারিত কিছু জানায় নি। সৌদি নেতৃত্বাধীন জোটও বিষয়টি নিয়ে কোনো মন্তব্য করেনি।

এর আগে বুধবার ইয়েমেনের হাউছিরা নাজরান প্রদেশে সৌদি আরবের একটি ঘাঁটি দখল করে নিয়েছে। ওই অভিযানে বেশ কয়েকজন সৌদি সেনা নিহত হয়।

গত কয়েক মাস ধরে ইয়েমেনের হাউছি বিদ্রোহী ও তাদের অনুগত সেনারা প্রায় নিয়মিতভাবে সৌদি আরবের ভেতরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়ে আসছে। তবে এসব হামলায় ক্ষয়ক্ষতির কথা প্রকাশ করছে না সৌদি আরব।

সৌদি ও আমিরাতের সব বন্দরে হামলার হুমকি হাউছিদের

গত আগস্টে সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিমানবন্দর এবং সমুদ্রবন্দরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার হুমকি দিয়েছিল ইয়েমেনের হাউছি বিদ্রোহীরা। ২০১৫ সালের মার্চ মাস থেকে সৌদি নেতৃত্বাধীন আরব জোট ইয়েমেনের ওপর যে অভিযান চালিয়ে আসছে তার জবাবে এ ব্যবস্থা নেয়ার হুমকি দেয় তারা।

হাউছি আন্দোলনের রাজনৈতিক শাখা থেকে দেয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের সমস্ত বিমানবন্দর, সমুদ্রবন্দর, সীমান্ত ক্রসিং পয়েন্ট এবং এসব দেশের যেকোনো গুরুত্বপূর্ণ স্থান আমাদের ক্ষেপণাস্ত্রের সরাসরি লক্ষ্যবস্তুতে পরিণত হবে যা আমাদের বৈধ অধিকার।’

হাউছিরা আরো বলেছে, ‘আমরা নিরলস বসে থাকব না বরং ইয়েমেনের ওপর আরোপিত অবরোধ নস্যাৎ করা এবং দেশের জনগণকে দুর্ভিক্ষের মুখে ফেলা কিংবা অপমান প্রচেষ্টার বিষয়ে আমরা আরো নানা উপায়ে ব্যবস্থা নেব।’

সৌদি নেতৃত্বাধীন আরব জোট ঘোষণা করেছে, ইয়েমেনের সমস্ত বিমানবন্দর, সমুদ্রবন্দর ও স্থলবন্দর সামিয়কভাবে বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এর একদিন পর হাউছিরা সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের বন্দরগুলোতে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালানোর ঘোষণা দেয়।
এমটিনিউজ২৪.কম/টিটি/পিএস



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


যে ৫ সময়ের দোয়া মহান আল্লাহ কবুল করেন

যে-৫-সময়ের-দোয়া-মহান-আল্লাহ-কবুল-করেন

যে আমলে পাপী ব্যক্তির শেষ পরিণতিও ভালো হয়

যে-আমলে-পাপী-ব্যক্তির-শেষ-পরিণতিও-ভালো-হয়

হজে বাংলাদেশের কোটা বাড়ছে

হজে-বাংলাদেশের-কোটা-বাড়ছে ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


ধান-মাছ-সবজির সমন্বিত চাষে ফেরিওয়ালা থেকে কোটিপতি!

ধান-মাছ-সবজির-সমন্বিত-চাষে-ফেরিওয়ালা-থেকে-কোটিপতি-

৩৩ বছর আগেই মারা গেছেন স্টিফেন হকিং!

৩৩-বছর-আগেই-মারা-গেছেন-স্টিফেন-হকিং-

এবার লেকে ভাসল রোবট রাজহাঁস!

এবার-লেকে-ভাসল-রোবট-রাজহাঁস- এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


পাঞ্জাবে তামিম, মুম্বাইয়ে মুস্তাফিজ ও সাকিব দিল্লিতে!

যে ৫ সময়ের দোয়া মহান আল্লাহ কবুল করেন

১০ ওভার বল করে ৭ ওভারই ডট দিয়েছেন মোস্তাফিজ! হলেন ডট বলের রাজা

নতুন আফ্রিদির তাণ্ডবে ৪১ ওভার বাকি থাকতেই পাকিস্তানের অবিশ্বাস্য জয়

পাঠকই লেখক


একটি শিক্ষণীয় গল্পঃ চোখের পানি ধরে রাখা যায় না

একটি-শিক্ষণীয়-গল্পঃ-চোখের-পানি-ধরে-রাখা-যায়-না

শাকিব কি আসবেন ডিএনসিসির বৈঠকে?

শাকিব-কি-আসবেন-ডিএনসিসির-বৈঠকে-

শেষ কোথায়

শেষ-কোথায় পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ