০৭:৪২:২১ শনিবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৭

সর্বশেষ সংবাদ :

     • তামিমের অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়ে বিশাল জয় পেল পাখতুনস     • টি-১০ লিগে দুর্দান্ত হাফসেঞ্চুরি করে ৪৬ লাখ টাকা দামের ঘড়ি জিতলেন তামিম!     • টি-১০ লিগে তামিমের চার-ছক্কার ঝড়: অবশেষে ১১১ রান!     • শোয়েব মালিকের ব্যাটিং ঝড়, হেরে গেল সাকিবের দল     • টি-১০ লিগে ব্যাটিংয়ে নেমেই শুরুতে বাউন্ডারি মারলেন তামিম: চলছে চার-ছক্কার তাণ্ডব!     • ‘বাংলাদেশের আশা জাতিসংঘে রোহিঙ্গা ইস্যু উত্থাপন করবে ভারত’     • সেদিন লন্ডনে যা বলেছিলেন বঙ্গবন্ধু     • টসে জিতে ব্যাটিংতে আফ্রিদি-তামিমের পাখতুনস     • ‘বেগম জিয়ার অবৈধ সম্পত্তি নিয়ে মির্জা ফখরুলের মনেও সন্দেহ’     • ৬ বলে ৬ ছক্কা, ৬৯ বলে ১৫৪ জাদেজার

রবিবার, ১৮ জুন, ২০১৭, ০৭:০১:৪১

বাবার বিরুদ্ধে মিছিল করিনি, চলচ্চিত্র বাঁচাতে রাস্তায় নেমেছি : বাপ্পী চৌধুরী

বাবার বিরুদ্ধে মিছিল করিনি, চলচ্চিত্র বাঁচাতে রাস্তায় নেমেছি : বাপ্পী চৌধুরী

বিনোদন ডেস্ক : যৌথ প্রযোজনার নামে যৌথ প্রতারণা বন্ধের দাবিতে আন্দোলনে নেমেছে চলচ্চিত্রের ১৪টি সংগঠনের সমন্বয়ে গঠিত চলচ্চিত্র ঐক্যজোট। রোববার দুপুর ১২টায় এফডিসি থেকে আন্দোলন শুরু করেন তারা। পরে এফডিসির মূল ফটকের সামনে মেইন রোডে প্রায় এক ঘণ্টা অবস্থান নেন।  

সেখানে বক্তব্য দেন ঢাকাই ছবির ‘সুলতান’ খ্যাত চিত্রনায়ক বাপ্পী চৌধুরী। তিনি বলেন, ‘কারো বিপক্ষে বা কোনো মহল-ব্যাক্তিকে প্রতিপক্ষ করে নয়, এই আন্দোলন দেশের সংস্কৃতি ও ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি রক্ষার আন্দোলন। যারা এই আন্দোলনের পক্ষে নন তারা নিজেরাই নিজেদের প্রতিপক্ষ করে তুলবেন। ’

তিনি আরও বলেন, ‘এত কষ্টের ইন্ডাস্ট্রি আমাদের। আমরা স্বপ্ন দেখি প্রতিদিন শুটিং হবে, আনন্দ উৎসবে ছবি মুক্তি পাবে। কিন্তু হচ্ছেটা কী? রোজার দিনে রাস্তায় দাঁড়িয়ে আন্দোলন করতে হচ্ছে। দিনকে দিন দেশের চলচ্চিত্র ধ্বংসের মুখে যাচ্ছে, ভিনদেশি ছবির বাজার বাড়ানো হচ্ছে। কৌশলে দেশীয় ছবিগুলোকে হল দেয়া হচ্ছে না। ভিনদেশ থেকে আসা মানহীন ছবিগুলো হল পেয়ে যাচ্ছে শতাধিক। এভাবে চললে যারা চলচ্চিত্রে কাজ করে খেয়ে পড়ে বেঁচে থাকি, তাদের আর কিছুই করার থাকবে না। ’

বাপ্পী বলেন, ‌‘অনেকেই বলছেন আমি জাজ থেকে এসেছি। এই প্রতিষ্ঠানটি আমার পিতার মতো। তবে আমি কেন জাজের বিরুদ্ধে আন্দোলন করছি? এটা খু্বই অবাক করা এবং বিব্রতকর প্রশ্ন আমার জন্য। বাবার বিরুদ্ধে সন্তান কখনো আন্দোলন করতে পারে না। আমিই বা কেন করবো। আমি এই আন্দোলনের একজন সক্রিয় কর্মী তার কারণ আমি আমার দেশ ও দেশের চলচ্চিত্রকে ভালোবাসি। এখানে আমি কাজ করে দুই বেলা ভাত খাই। জাজের হাত ধরেই আমি এখানে পা রেখেছি। জাজের কাছ থেকেই শিখেছি কাজের প্রতি, পেশার প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকতে হবে। আজ যারা আমার পেটে লাথি মারতে চাইছে আমি তো তার হয়ে সাফাই গাইতে পারি না। ’

তিনি আরও বলেন, ‘আমাকে বেঁচে থাকার তাগিদেই আজ রাস্তায় নামতে হয়েছে। শুধু আমাকেই না, আরও অনেকেই আজ আন্দোলনে এসেছেন। এর কারণ সবাই দু মুঠো ভাত খেয়ে টিকে থাকতে চান। এখন দেশের চলচ্চিত্র কারা ধ্বংস করছেন সেটা তো দেখার বিষয় আমার নয়। আর এটা একতরফা জাজের বিষয়ও নয়। কেন আন্দোলনকে জাজের বিরুদ্ধে দেখা হচ্ছে? কেন আমার অংশ নেয়াটাকে ইস্যু করা হচ্ছে।

বাপ্পী বলেন, ‘আমি জাজ প্রধান আব্দুল আজিজকে বলতে চাই, ‘আপনি আমার বাবার মতো। এই বাবা দিবসে আমি আমার বাবার বিরুদ্ধে মিছিল করিনি, স্লোগান তুলিনি, তাকে খাটো করে কোনো কথাও বলিনি। আমাদের স্লোগান আর ধিক্কার ছিলো দেশের চলচ্চিত্র বিরোধীদের বিরুদ্ধে। আপনি পেশাদার মানুষ, আশা করি কানকথা, পাড়াকথায় সন্তানের ভুল না ধরে একজন পেশাজীবীর টিকে থাকার আবেগকে প্রাধান্য দেবেন। ’

জুন, ২০১৭/এমটিনিউজ২৪ডটকম/এসএস



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


‘অন্তর জ্বালা মুক্তির পর আমাকে নিয়ে আলোচনা হবে’

‘অন্তর-জ্বালা-মুক্তির-পর-আমাকে-নিয়ে-আলোচনা-হবে’

‘তিনি তাঁর মায়ের দোয়ার বরকতেই আজ পবিত্র কাবা শরিফের ইমাম হয়েছেন।’

‘তিনি-তাঁর-মায়ের-দোয়ার-বরকতেই-আজ-পবিত্র-কাবা-শরিফের-ইমাম-হয়েছেন।’

যে সহজ আমলে রুজি-রোজগার বাড়ে

যে-সহজ-আমলে-রুজি-রোজগার-বাড়ে ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


প্রতারক স্বামীর সাথে পপির যে গল্প সিনেমাকেও হার মানায়!

প্রতারক-স্বামীর-সাথে-পপির-যে-গল্প-সিনেমাকেও-হার-মানায়-

বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল দূতাবাস ভবনের যাত্রা শুরু!

বিশ্বের-সবচেয়ে-ব্যয়বহুল-দূতাবাস-ভবনের-যাত্রা-শুরু-

এই ৯টি টিপস জানলে মাছ কিনতে গিয়ে কখনো ঠকবেন না

এই-৯টি-টিপস-জানলে-মাছ-কিনতে-গিয়ে-কখনো-ঠকবেন-না এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


দশ বছরের বড় যুবতী ভাবির সঙ্গে নবম শ্রেণির ছাত্রের...

বিরাট-কোহলির পর এবার সালমান-ক্যাটরিনা বিয়ে?

সবচেয়ে বিপদের বন্ধুকে হারিয়ে ব্যথিত মাশরাফি- স্কয়ার হাসপাতালে মারা গেলেন তিনি!

মাশরাফি কতটা সাধারণ মানুষ আবারো প্রমাণ করলেন, যা বললেন সেই ৫ কোটি টাকার গাড়ি নিয়ে

পাঠকই লেখক


এলোমেলো স্মৃতিগুলো

এলোমেলো-স্মৃতিগুলো

বিজয়ের এই দিনে

বিজয়ের-এই-দিনে

মাটির এই দেহখানি

মাটির-এই-দেহখানি পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ