০২:৩৮:৪২ শুক্রবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৮

সর্বশেষ সংবাদ :

     • শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশকে ১৭৯ রানের টার্গেট দিল জিম্বাবুয়ে     • চাপে জিম্বাবুয়ে, ১৯ রান দিয়ে ৫ উইকেট নিলেন ইবাদত      • অবাক করা তথ্য: মাশরাফির ফেসবুক পেজ তিনি নিজে নন, কে চালায় জানেন?     • রবিবার ম্যাচ শুরু, শনিবার থেকে শুরু টিকিট বিক্রি     • আপনার কিডনির সমস্যা হয়েছে কিনা যেভাবে বুঝবেন     • জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আজ কে কেমন করছে সেদিকে নজর প্রধান কোচের     • ভারতীয়রাই ফিক্সিংয়ের সাথে বেশি জড়িত : আইসিসি কর্মকর্তা     • এবার মাশরাফির নিজ ফাউন্ডেশন ক্রিকেটার খুঁজে বের করবে!     • জুভেন্টাস আমাকে লাথি মেরে বের করে দিয়েছিল: হিগুইন     • এবার ইউক্যাশেও পাওয়া যাবে বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ে সিরিজের টিকিট

শুক্রবার, ১৩ এপ্রিল, ২০১৮, ০৭:২২:১৯

প্রতিউত্তর

প্রতিউত্তর

সরকারের দুঃশাসন, লুটপাট ও দুর্নীতির করালগ্রাসে দেশে এখন নীরব দুর্ভিক্ষ চলছে। গত বছরের বন্যা ও প্রাকৃতিক দুর্বিপাকে কৃষকের ফসলহানির পর সরকারের সবদিকে ব্যর্থতার কারণে চালের দামসহ সব খাদ্যপণ্যের দাম অস্বাভাবিক বেড়েছে। মানুষ এখন দুই বেলা দুমুঠো ভাত পাচ্ছে না। বললেন বিএনপি সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

শুক্রবার সকালে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগ যখনই ক্ষমতায় আসে তখনই দেশে দুর্ভিক্ষ নামে।  ৭৪ এর দুর্ভিক্ষের কথা মানুষ এখনও ভুলে যায়নি। কুড়িগ্রামের ঘটনা ৭৪ এর দুর্ভিক্ষেরই আলামত। দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি, গ্যাস বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি, বিনিয়োগ না থাকায় নতুন কর্মসংস্থান নেই, বিদেশি রেমিটেন্স আসা প্রায় বন্ধ, বেকার সমস্যা প্রকট আকার ধারণ করেছে।

তিনি আরও বলেন, রাস্তাঘাট বেহাল দশার কারণে গ্রামের খেটে খাওয়া মানুষগুলোও রিকসা ভ্যান, সিএনজি চালানোসহ যে সকল কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করতো, সেটুকুর সুযোগও আজ নেই।

রিজভী বলেন, দেশ পরিচালনা করতে আপনাদের তো জনগণের ভোটের প্রয়োজন হয় না। আপনাদের মুখে জনগণের নিকট ভোট চাওয়ার কথা রসিকতা ছাড়া আর কিছুই নয়।

সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, বেগম খালেদা জিয়া বিহীন জাতীয় নির্বাচন আর এদেশে অনুষ্ঠিত হবে না, জনগণ তা হতে দেবে না। বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং শেখ হাসিনার পতন এক সাথে সংঘটিত হবে।

রুহুল কবির রিজভী আরও বলেন, কোনো ন্যায্য দাবিতে আন্দোলন কখনও বৃথা যায় না। বেগম জিয়াকে মুক্ত করতে এবং মানুষের ভোটের অধিকার ফিরে পেতে যে আন্দোলন চলছে সেই আন্দোলনের বিজয় অতি সন্নিকটে। চক্রান্ত করে বন্দুকের জোরে মানুষের অধিকারকে দমিয়ে রাখা যাবে না। সাধারণ শিক্ষার্থীদের ন্যায্য আন্দোলনের কাছে সরকার যেভাবে মাথা নত করেছে, তাতে যুবক, যুবতী, তরুণ-তরুণীসহ সাধারণ মানুষের ভোটের অধিকার ফিরিয়ে পাওয়া, দেশে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা, মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠার ন্যায্য আন্দোলনও বৃথা যাবে না।
এমটিনিউজ২৪.কম/টিটি/পিএস



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


জানাজায় জুতা খুলে নাকি পরে দাঁড়াতে হবে? ইসলামের সঠিক নিয়ম কি?

জানাজায়-জুতা-খুলে-নাকি-পরে-দাঁড়াতে-হবে--ইসলামের-সঠিক-নিয়ম-কি-

যে কারণে মানুষ সৃষ্টিতে কান্না করেছিল মাটি, জানলে আপনিও কাঁদবেন

যে-কারণে-মানুষ-সৃষ্টিতে-কান্না-করেছিল-মাটি-জানলে-আপনিও-কাঁদবেন

সৌদির আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত বিজয়ীর নাম ঘোষণা

সৌদির-আন্তর্জাতিক-কুরআন-প্রতিযোগিতার-চূড়ান্ত-বিজয়ীর-নাম-ঘোষণা ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


আকাশ আলোকিত করতে এবার বানানো হচ্ছে কৃত্রিম চাঁদ!

আকাশ-আলোকিত-করতে-এবার-বানানো-হচ্ছে-কৃত্রিম-চাঁদ-

মেজ সন্তানরা ব্যক্তিগত এবং কর্ম জীবনে বেশি সফলতা লাভ করেন

মেজ-সন্তানরা-ব্যক্তিগত-এবং-কর্ম-জীবনে-বেশি-সফলতা-লাভ-করেন

সৃষ্টিকর্তা বলে কেউ নেই: স্টিফেন হকিং

সৃষ্টিকর্তা-বলে-কেউ-নেই-স্টিফেন-হকিং এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সৌম্য সরকারের নেতৃত্বে ১২ সদস্যের দল ঘোষণা

সৃষ্টিকর্তা বলে কেউ নেই: স্টিফেন হকিং

জিম্বাবুয়ে সিরিজে যে কারণে দলে জায়গা পেলেন না আশরাফুল

'মেসি ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড় কিন্তু আমি তার সঙ্গে কখনোই খেলব না'

পাঠকই লেখক


বিয়ে করে একজন গরীবের মেয়েকে বউ করে এনেছিলাম, তারপর...

বিয়ে-করে-একজন-গরীবের-মেয়েকে-বউ-করে-এনেছিলাম-তারপর

যদি ১৯৮৫-৯৫ সালের মধ্যে জন্মে থাকেন, তারা পড়ে আবেগাপ্লূত হয়ে যাবেন!

যদি-১৯৮৫-৯৫-সালের-মধ্যে-জন্মে-থাকেন-তারা-পড়ে-আবেগাপ্লূত-হয়ে-যাবেন-

এক লোক ঘরে ঢুকে দেখে স্ত্রী কান্নাকাটি করছে ,কারণ...

এক-লোক-ঘরে-ঢুকে-দেখে-স্ত্রী-কান্নাকাটি-করছে-কারণ পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ