একাধিক প্রেম করায় প্রেমিককে মেরে পুঁতে রাখে ফারজানা

০৯:২৭:০১ সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সর্বশেষ সংবাদ :

     • একা সাকিব আর কত টানবেন, ওপেনাররা জাগবে কবে?     • ১০ ভাগ ফিট থাকলেও বাংলাদেশের বিপক্ষে দেশের জন্য ফাইনাল খেলবো : রশিদ খান     • ভারতের ব্যাটিং নিয়ে এ কেমন রসিকতা দুই ধারাভাষ্যকারের?     • চাইলে ফাইনাল ম্যাচে খেলতে পারবেন আমিনুল বিপ্লব     • যে কোনো মুহূর্তে ভারতে ঢুকে যেতে পারে ৫০০ সন্ত্রা'সী     • আমাকে যদি দরকার হয়, ডাকলেই আমি তোমাদের পাশে থাকব : মেয়েদের উদ্দেশে গৌতম গাম্ভীর     • এক হাত না থাকলেও ফাইনালে খেলবেন রশিদ খান     • যুক্তরাষ্ট্রে নরেন্দ্র মোদিকে অভ্যর্থনায় লাল গালিচা, ইমরান খানকে বার্থরুমের পাপোশ!     • মদিনা শরিফের ইমামের 'ব্রেন স্ট্রোক', সুস্থতার জন্য বিশ্ববাসীর কাছে দোয়ার আবেদন     • চুনোপুঁটি-রাঘববোয়াল গডফাদার বুঝি না, অপরাধীরা ধরা পড়বেই : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ০৫:৩৮:৩১

একাধিক প্রেম করায় প্রেমিককে মেরে পুঁতে রাখে ফারজানা

একাধিক প্রেম করায় প্রেমিককে মেরে পুঁতে রাখে ফারজানা

হবিগঞ্জ: হবিগঞ্জের লাখাইয়ে নিখোঁজের দুই মাস পর এক কলেজছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। সোমবার বিকেলে উপজেলার মেন্দির হাওরের একটি পুকুর থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। নিহত ওই ছাত্র মুড়াকরি গ্রামের শাহ আলমের ছেলে উজ্জ্বল মিয়া (২২)। সে মাধবপুর সৈয়দ সাঈদ উদ্দিন কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।

এ ঘটনায় একই উপজেলার ধর্মপুর গ্রামের মঞ্জু মিয়া ও তার মেয়ে ফারজানা আক্তারকে আটক করা হয়েছে। তারা পুলিশের কাছে হত্যাকাণ্ডের কথা স্বীকার করেছেন। এ বিষয়ে সোমবার সন্ধ্যায় থানা চত্বরে সংবাদ সম্মেলন করেছেন পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্ল্যা।

তিনি গ্রেফতারদের বরাত দিয়ে জানান, উপজেলার ধর্মপুর গ্রামের মঞ্জু মিয়ার মেয়ে ফারজানা আক্তার (১৭) হবিগঞ্জ বৃন্দাবন সরকারি কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী এবং মুড়াকরি গ্রামের শাহ আলমের ছেলে উজ্জ্বল মিয়া মাধবপুর সৈয়দ সাঈদ উদ্দিন কলেজে পড়াশোনা করে। ফেসবুকের মাধ্যমে তাদের পরিচয় হয়। একপর্যায়ে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। ফলে উজ্জ্বল মাঝে মাঝে ফারজানা আক্তারের বাড়িতে আসা-যাওয়া করত।

গত ফেব্রুয়ারি মাসে ফারজানার বাবা-মা ঢাকায় যান। এ সুযোগে ২০ ফেব্রুয়ারি উজ্জ্বল তার বাড়ি যায়। ওই রাতে তারা দৈহিক সম্পর্কে মিলিত হয়। এ সময় উজ্জ্বলের অন্য এক প্রেমিকা তাকে ফোন দিতে থাকে। কিন্তু সে ফোন রিসিভ না করে মেসেজ দেয়। সেটি দেখতে পেয়ে ফারজানা প্রথমে আত্মহত্যার সিদ্ধান্ত নেয়। পরে সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে উজ্জ্বলকে হত্যার পরিকল্পনা করে।

ওই রাতেই ঘরে থাকা মসলা বাটার শিল (পুথাল) দিয়ে তার মাথায় আঘাত করে। মৃত্যু নিশ্চিত করতে হাত ও পায়ের রগ কেটে দেয়। মৃত্যু নিশ্চিত হওয়ার পর মরদেহ বস্তায় ভরে ঘরের মেঝেতে পুঁতে রাখে। পরদিন ঢাকায় গিয়ে বাবা-মাকে বিষয়টি জানায়। তার বাবা ঢাকা থেকে এসে মরদেহ নিয়ে মেন্দি হাওরে পুঁতে রাখেন।

এ ঘটনায় ২৬ ফেব্রুয়ারি উজ্জ্বলের বাবা থানায় একটি জিডি করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে পুলিশ সুপারের তত্ত্বাবধানে তদন্ত শুরু হয়। ২১ এপ্রিল ফারজানা ও তার বাবা মঞ্জু মিয়াকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

একপর্যায়ে ফারজানা ঘটনা স্বীকার করে। তার বাবা মঞ্জু মিয়াও পরে বিষয়টি স্বীকার করেন। তাদের দেখানো তথ্য মতে সোমবার বিকেলে হাওর থেকে উজ্জ্বলের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।জাগো নিউজ



খেলাধুলার খবর »
খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


মদিনা শরিফের সবচেয়ে প্রবীণ ইমাম ও খতিব শায়খ হুজাইফি অসুস্থ

মদিনা-শরিফের-সবচেয়ে-প্রবীণ-ইমাম-ও-খতিব-শায়খ-হুজাইফি-অসুস্থ

ঘুম না আসলে যে দোয়া পড়তে বলেছেন প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম

ঘুম-না-আসলে-যে-দোয়া-পড়তে-বলেছেন-প্রিয়-নবি-সাল্লাল্লাহু-আলাইহি-ওয়া-সাল্লাম

পবিত্র ইসলামের সুমহান আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে বৌদ্ধ ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ

পবিত্র-ইসলামের-সুমহান-আদর্শে-অনুপ্রাণিত-হয়ে-বৌদ্ধ-ধর্ম-ত্যাগ-করে-ইসলাম-ধর্ম-গ্রহণ ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


অবাক ঘটনা মেহেরপুরে, বিয়ে করতে কনে গেলেন বরের বাড়ি!

অবাক-ঘটনা-মেহেরপুরে-বিয়ে-করতে-কনে-গেলেন-বরের-বাড়ি-

চিনে নিন এই ব্যক্তিকে, যিনি ১০০ স্ত্রীর স্বামী ও ৫০০ সন্তানের বাবা!

চিনে-নিন-এই-ব্যক্তিকে-যিনি-১০০-স্ত্রীর-স্বামী-ও-৫০০-সন্তানের-বাবা-

আপন মা নারাজ, পুত্রবধূকে বাঁচাতে নিজের কিডনি দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন শাশুড়ি

আপন-মা-নারাজ-পুত্রবধূকে-বাঁচাতে-নিজের-কিডনি-দিয়ে-দৃষ্টান্ত-স্থাপন-করলেন-শাশুড়ি এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


বড় চমক দিয়ে আফগানদের বিপক্ষে ফাইনাল ম্যাচের স্কোয়াড ঘোষণা করল বাংলাদেশ

ম্যাচ জিতে এবার যাকে প্রশংসায় ভাসালেন সাকিব

ফাইনাল ম্যাচে ও থাকলে দলের জন্য ভালো হতো : মোসাদ্দেক

ফাইনাল ম্যাচে শান্তর বদলে মাঠে নামবে তামিম ইকবাল!

পাঠকই লেখক


শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি যে, এই গ্রামের সবাই দৃষ্টিহীন! কারণ...

শুনতে-অবাক-লাগলেও-এটাই-সত্যি-যে-এই-গ্রামের-সবাই-দৃষ্টিহীন--কারণ

ছাগল চুরির ৪১ বছর পর ধরা পড়লো চোর!

ছাগল-চুরির-৪১-বছর-পর-ধরা-পড়লো-চোর-

মহাকাশে সিমেন্ট গুলছে নাসার বিজ্ঞানিরা, চাঁদে বানানো হবে বাড়ি

মহাকাশে-সিমেন্ট-গুলছে-নাসার-বিজ্ঞানিরা-চাঁদে-বানানো-হবে-বাড়ি পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ