ছেলের লাশ দেশে আনতে ভিক্ষা করছেন মা

০৭:৩১:৩৪ বৃহস্পতিবার, ০৬ আগস্ট ২০২০

সর্বশেষ সংবাদ :

     • উত্তাল একাত্তরে দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ এক টগবগে যুবক ছিলেন শেখ কামাল : শাহীন চাকলাদার      • কঠিন সময়ে পাশে দাঁড়িয়ে লেবাননের জন্য আল্লাহর কাছে দোয়া প্রার্থনা ইমরান খানের     • যে কারণে লেবাননের ভয়ঙ্কর সেই বি'স্ফো'রণ ঘ'টলো (ভিডিও)     • ট্রাফিক সার্জেন্টের বাইক ঘিরে রেখেছে পুলিশ, ঘটনাস্থলে যাচ্ছে র‌্যাব     • লেবাননে বি'স্ফো'রণে নিহত ৪ বাংলাদেশি, আহ'ত ১০০ বাংলাদেশি     • নিউইয়র্কের টাইমস স্কোয়ারের বিলবোর্ডে ভেসে উঠলো অযোধ্যার রাম মন্দির     • সুশান্ত মৃত্যু মামলায় সিবিআই তদন্ত, বিজ্ঞপ্তি জারি সরকারের     • অতীতের সব রেক'র্ড ভে'ঙে আবারো বাড়ল স্বর্ণের দাম     • বৈরুত বি'স্ফোরণে ইসরায়েল জড়িত থাকতে পারে : ইরাকি এমপি     • এলাকা ঘি'রে রেখেছে পুলিশ, খবর দেয়া হয়েছে বো'মা নি'ষ্ক্রিয়করণ ইউনিটকে

মঙ্গলবার, ২৪ জুলাই, ২০১৮, ০৯:২৭:১১

ছেলের লাশ দেশে আনতে ভিক্ষা করছেন মা

ছেলের লাশ দেশে আনতে ভিক্ষা করছেন মা

মাগুরা: গত ৪ জুলাই সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হন মাগুরার সন্তান শাহ আলম। এরপর ২১ দিন পেরিয়ে গেলেও টাকার অভাবে তার লাশ দেশে আসেনি।শাহ আলম মহম্মদপুর উপজেলার দেউলি গ্রামের বাসিন্দা দিনমজুর সায়েন উদ্দিন মোল্যার ছেলে। তার মায়ের নাম হুরিয়া বেগম। তারা শুনেছেন- সৌদির জেদ্দা থেকে ছেলের লাশ দেশে আনতে হলে তাদের গুনতে হবে আড়াই লাখ টাকা।

কিন্তু এত টাকা কোথায় পাবে তা ভেবে কূলকিনারা করতে পারছে না নদীভাঙনে ভিটেমাটিসহ সর্বস্ব হারানো শাহ আলমের পরিবার। উপায় না পেয়ে সন্তানের লাশ আনার টাকা জোগাড় করতে দ্বারে দ্বারে ভিক্ষা শুরু করেছেন মা হুরিয়া বেগম।

গত কয়েক দিনে ২১ হাজার টাকার মতো জোগাড় হয়েছে। তবে আর কত দিন ভিক্ষা করলে বাকি টাকা জোগাড় হবে তার হিসাব মিলছে না।

এ অবস্থায় মৃত সন্তানের মুখ শেষবারের মতো দেখার বিষয়ে সন্দিহান হয়ে পড়েছেন বলে জানান হুরিয়া বেগম। তিনি জানান, মঙ্গলবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত মহম্মদপুর উপজেলা সদরের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ক্লাসে ক্লাসে গিয়ে পাঁচ হাজার ৮০০ টাকা সাহায্য পেয়েছেন।

সব মিলিয়ে গত কয়েক দিনে ২১ হাজার টাকার মতো জোগাড় হয়েছে। কিন্তু যে হারে সাহায্য পাচ্ছেন তাতে লাশ আনার আড়াই লাখ টাকা জোগাড় করতে অনেক দিন লেগে যাবে বলে হতাশ কণ্ঠে জানান হুরিয়া বেগম।

দিনমজুর সায়েন উদ্দিন জানান, দারিদ্র্যতার অভিশাপ থেকে মুক্তি পেতে ছেলে শাহ আলমকে গত বছরের ৯ আগস্ট সৌদি আরবে পাঠান।

এ জন্য এনজিও থেকে ঋণ নেয়ার পাশাপাশি আত্মীয়স্বজনদের কাছ থেকেও শাহ আলমের পরিবার অনেক টাকা ধারদেনা করেছে।

তবে সৌদি পৌঁছে ১০ মাস নির্মাণশ্রমিকের কাজ করলেও তিনি পরিবারের কাছে কোনো টাকা পাঠাতে পারেননি। এরই মধ্যে শাহ আলম সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হওয়ায় তার লাশ আনার খরচ জোগাড় করা নিয়ে বিপাকে পড়েছেন বলে জানান সায়েন উদ্দিন।

তিনি বলেন, উপায় না পেয়ে আমার স্ত্রী বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও বাজারঘাটে গিয়ে আর্থিক সাহায্যের জন্য মানুষের কাছে হাত পাতছে।

এ সময় কান্নাজড়িত কণ্ঠে তিনি বলেন, কলিজার টুকরার লাশের মুখখানা শেষ দেখার জন্য সরকারের কাছে ও সমাজের বিক্তবানদের কাছে সাহায্য প্রার্থনা করছি।

‘আমার মনিরে একটু শেষবারের মতো দেখতে দেন আপনারা’ বলেই কাঁদতে থাকেন হুরিয়া বেগম।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মহম্মদপুরের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ সাদিকুর রহমান বলেন, নিহত শাহ আলমের মা হুরিয়া বেগম আমার কাছে আজ সকালে এসেছিলেন। আমি বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে কথা বলেছি। সরকারিভাবে যতটুকু সহযোগিতা আছে সেটি করা হবে।সুত্র:যুগান্তর



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


যে দুই কাজের কারণে বান্দার কোনো দোয়াই আল্লাহ তাআলা কবুল করেন না

যে-দুই-কাজের-কারণে-বান্দার-কোনো-দোয়াই-আল্লাহ-তাআলা-কবুল-করেন-না

অভাবীকে সাহায্য করলেই আল্লাহর সাহায্য মিলবে

অভাবীকে-সাহায্য-করলেই-আল্লাহর-সাহায্য-মিলবে

সূরা ফাতেহা সব রোগের মহাওষুধ

সূরা-ফাতেহা-সব-রোগের-মহাওষুধ ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


৩৩ বার ম্যাট্রিকে ফেল করেও হাল ছাড়েননি নুরউদ্দিন, অবশেষে লকডাউনে ভাগ্য খুললো

৩৩-বার-ম্যাট্রিকে-ফেল-করেও-হাল-ছাড়েননি-নুরউদ্দিন-অবশেষে-লকডাউনে-ভাগ্য-খুললো

করোনার মূল উপসর্গ নিয়ে গোড়াতেই বড় ভুল হয়ে গেছে: দাবি বিশেষজ্ঞদের

করোনার-মূল-উপসর্গ-নিয়ে-গোড়াতেই-বড়-ভুল-হয়ে-গেছে-দাবি-বিশেষজ্ঞদের

একটি পাখির বাসা বাঁ'চাতেই টানা ৩৫ দিন অন্ধকারে গ্রাম

একটি-পাখির-বাসা-বাঁ-চাতেই-টানা-৩৫-দিন-অন্ধকারে-গ্রাম এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


পাকিস্তানের প্রতি দায়িত্ববোধের কারণে ২ কোটি টাকার প্রস্তাব ফিরিয়ে দেন শোয়েব আখতার

বিশ্বের যে প্রান্তেই অন্যায় দেখব সেখানেই মুখ খুলব : আফ্রিদি

অমিত শাহ হাসপাতালে ভ'র্তি হওয়ায় গ'ভীর উ'দ্বে'গ প্রকাশ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর

দুই জনকে গু'লি করে মে'রে আ'ত্ম'সমর্প'ণ করল বিএসএফ জওয়ান

বিচিত্র জগৎ


গত ২০ বছর ধরে হেলমেট পরে আছেন এই নারী!

গত-২০-বছর-ধরে-হেলমেট-পরে-আছেন-এই-নারী-

এই নারীর কাহিনি চমকে দেওয়ার মতো, রাস্তায় ছোলা বিক্রি করে কোটিপতি!

এই-নারীর-কাহিনি-চমকে-দেওয়ার-মতো-রাস্তায়-ছোলা-বিক্রি-করে-কোটিপতি-

পৃথিবীর যে রহস্যের কোনও সমাধানই করা গেল না আজ পর্যন্ত, যার ব্যাখ্যা বিজ্ঞানও দিতে পারেনি!

পৃথিবীর-যে-রহস্যের-কোনও-সমাধানই-করা-গেল-না-আজ-পর্যন্ত-যার-ব্যাখ্যা-বিজ্ঞানও-দিতে-পারেনি- বিচিত্র জগতের সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ