সোমবার, ০৩ জানুয়ারী, ২০২২, ০৫:০৪:০০

শীতের রাতে সোয়েটার পরে ঘুমান? সাবধান, অচিরেই ডেকে আনছেন বিপদ!

শীতের রাতে সোয়েটার পরে ঘুমান? সাবধান, অচিরেই ডেকে আনছেন বিপদ!

শীত এল তো এবার শীত থেকে বাঁচার পালা। কিন্তু শীতের হাত থেকে বাঁচতে গিয়ে আবার শরীরের ক্ষতি করে ফেলবেন না যেন! প্রায়শই দেখা যায় যে, রাতে শুতে যাওয়ার সময় উলের পোশাক পরে ঘুমায়। কিন্তু এই ছোট অসাবধানতা আমাদের স্বাস্থ্যের উপর একটি বড় বোঝা চাপিয়ে দিতে পারে। ভাবছেন তো,এ আবার কি সব বলছি! তাহলে বেশি না ভেবে আজকের লেখাই পড়ুন।

বিশেষজ্ঞদের মতে, শীতে আমাদের র'ক্তবাহ সঙ্কু'চিত হয়ে যায়। পশমের পোশাক পরে ঘুমিয়ে পরলে আমাদের শরীরকে উষ্ণ করে তোলে, যার ফলে কখনও কখনও নিম্ন র'ক্তচা'পের কারণ হতে পারে। যা আপনার স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। যদি গরম পোশাক পরে থাকে তবে থার্মোকট পরা যেতে পারে।

র'ক্ত চলাচল বাধাগ্রস্থ হয়
রাতের বেলায় সোয়েটার পরে ঘুমালে আপনি ঠান্ডা থেকে বাঁচবেন ঠিকই, কিন্তু আপনার শরীরের র'ক্ত চলাচল ব্যাহ'ত হয়। ঘুমানোর সময় গরম উলের পোশাক পরলে শরীরে ঠিকমতো র'ক্ত প্রবাহিত হতে পারে না। এতে র'ক্ত জ'মাট বাধা-সহ বিভিন্ন সমস্যা হতে পারে।

উল থেকে অ্যালার্জি হতে পারে
আমাদের উল থেকে অ্যালার্জি হওয়ার পিছনে অনেক কারণ রয়েছে। উল হল প্রাকৃতিক তন্তু। যা ভেড়া এবং কিছু কিছু সময়ে ছাগলের গা থেকে নেওয়া হয়। উল থেকে তেল নিষ্কাশন এবং পরিষ্কার করবার জন্য রাসায়নিক ও উলে রঙ করবার জন্য স্বাভাবিক ডাই ব্যবহার করা হয়। রাসায়নিক ও ডাইয়ের মিশ্রণ ত্বকের সংস্পর্শে এলে অস্বস্তি হতে পারে। এর ফেল চুলকানি, ফুলে যাওয়া এবং চোখ লাল হয়ে যাওয়া। ফুসকুড়ি এবং আমবাতও হতে পারে।

স্বাভাবিক তাপমাত্রা ব্যাহত হয়
শীতের রাতে উলের পোশাক পরে ঘুমালে ঘুমানোর সময় শরীরের স্বাভাবিক তাপমাত্রা ব্যাহত হয়। শরীরের তাপমাত্রা অতিরিক্ত বেড়ে গিয়েও আপনার সমস্যা সৃষ্টি হতে পারে।

শিশুদের গরমের পোশাক পরিয়ে ঘুম পাড়াবেন না
সর্দি,কাশি যেন না হয় সেজন্য রাতে অনেকেই শিশুদের উলের পোশাক পরিয়ে ঘুম পাড়ান। কিন্তু রাতে শিশুদের কোনো অবস্থাতেই ঘুম পাড়ানো যাবে না। কারণ ছোট শিশুরা রাতে বিছানা ভিজিয়ে ফেলে। সে সময় শীতের পোশাক পরলে সেটাও ভিজিয়ে ফেলবে। ফলে ভেজা কাপড়ে আরও বেশি সর্দি,কাশি বা জ্বরও হতে পারে।

দেখলেন তো,রাতে শীতের পোশাক পরে ঘুমালে কত রকম ক্ষতি হতে পারে আপনার। তাই শীতের মাত্রা যেমনই থাকুক না কেন, ভালো করে কাঁথা-কম্বল মুড়ি দিয়ে ঘুমান তাতে কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু ভুলেও রাতের বেলায় মোজা পরে ঘুমাবেন না যেন! এই সময়

এমটিনিউজ২৪.কম এর খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) এ ডান দিকের স্টার বাটনে ক্লিক করে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি ফলো করুন! Follow করুন এমটিনিউজ২৪ গুগল নিউজ