ঢাকার জীবন গুছিয়ে স্থায়ীভাবে গ্রামে ফিরে যাচ্ছে বহু পরিবার!

০৭:৪৫:২২ মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১

সর্বশেষ সংবাদ :

     • আজ ইসরাইলে রকেট বৃষ্টি, নিহত ২     • ইসরায়েলি গ্যাসক্ষেত্রে ভয়াবহ আগুন     • ঝাঁকে ঝাঁকে রকেট যাচ্ছে ইজরায়েলের উপর     • ইজরায়েলের বর্বর আগ্রাসনের প্রতিবাদে ইউরোপেও বিক্ষোভ      • দেশে গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় রেকর্ডসংখ্যক প্রাণহানি     • শক্তিশালী কাসেম ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে ইসরায়েলের সেনা অবস্থান ও অস্ত্র গুদামে আঘাত     • বাংলাদেশের বিপক্ষে দুটি টেস্ট এবং তিনটি ওয়ানডে খেলতে ঢাকায় আসছে ভারত      • ফিলিস্তিনে সেনাবাহিনী পাঠানোর ঘোষণা মালয়েশিয়ার      • সবচেয়ে বেশি ইসরাইলি যুদ্ধবিমান ধ্বংস করেছিলেন বাংলাদেশি সাইফুল     • ইসরাইলের বিপক্ষে স্পেনে বাংলাদেশি ছেলের প্রশংসনীয় উদ্যোগ

মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল, ২০২১, ১০:০৭:৪৭

ঢাকার জীবন গুছিয়ে স্থায়ীভাবে গ্রামে ফিরে যাচ্ছে বহু পরিবার!

ঢাকার জীবন গুছিয়ে স্থায়ীভাবে গ্রামে ফিরে যাচ্ছে বহু পরিবার!

মুন্সিগঞ্জ: তাহমিনা, রুবিনা ও হেলেনা বেগমের বাড়ি পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলায় হলেও দীর্ঘদিন ধরে থাকতেন রাজধানীর আটিবাজার এলাকায়। তাহমিনা বেগম কাজ করতেন গার্মেন্টসে, হেলেনা বেগম ছেলে-মেয়েকে লেখাপড়া করানোর জন্য এসেছিলেন ঢাকায় আর গৃহিণী রুবিনা বেগম ঢাকায় থাকতেন গাড়িচালক স্বামীর সাথে।

করোনায় গত এক বছরের বেশি সময়ে চালু হয়নি হেলেনা বেগমের সন্তানদের বিদ্যালয়। আর নতুন করে লকডাউনে তাহমিনা বেগমের গার্মেন্টস আর রুবিনা বেগমের স্বামীর কর্মস্থল আবারও বন্ধ। আয়ের পথ না থাকায় ব্যয় করার সামর্থ্য নেই তাদের। এমন পরিস্থিতিতে বাধ্য হয়ে ঢাকা ছেড়ে গ্রামে ফিরে যেতে হচ্ছে তাদের তিনজনকেই।

সোমবার (১২ এপ্রিল) বিকেলে মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া ঘাটে এই তিন নারীর সাথে কথা হলে এমনটিই জানান তারা। শুধু এই তিনজনই নয়, এদিন সরজমিনে ঘাট এলাকায় দেখা যায় ঢাকার জীবন গুছিয়ে স্থায়ীভাবে গ্রামে ফিরে যাচ্ছে ডজন খানেক পরিবার। করোনায় কর্মস্থল আর আয় বন্ধের কঠিন পরিস্থিতিতে কুলিয়ে উঠতে না পেরে অনেকেই ফিরে যাচ্ছেন গ্রামে। বিশেষ করে ১৪ এপ্রিলের সর্বাত্মক লকডাউনকে কেন্দ্র করে এসব মানুষের দীর্ঘ সারি এখন শিমুলিয়া ঘাটে। সাজানো গোছানো ঘরের আসবাবপত্র ট্রাক কিংবা পণ্যবাহী পিকভ্যানে তুলে দিয়ে পদ্মা পাড়ি দিতে তারা উপস্থিত হয়েছেন ফেরিঘাটে।

গ্রামে ফেরা যাত্রীরা বলেন, জীবিকা আর উন্নত জীবনের আশায় অনেকেই একদিন আবাস গড়েছিলেন রাজধানী ঢাকায়। তবে করোনার কঠিন বাস্তবতায় আবারও তারা গ্রামের পথে। করোনা পরিস্থিতি কেটে গেলে হয়ত আবারও ঢাকায় ফিরে আসবেন তারা। তবে গ্রামে ফিরে গিয়ে কী করবের সেটি নিয়েও রয়েছে দুশ্চিন্তা। শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া এলাকার ইশরাত জাহান থাকতেন ঢাকার নাখালপাড়ায়। গ্রামে ফেরার যাত্রায় সামিল হয়েছেন তিনিও।

তিনি জানান, মেয়েকে পড়ানোর জন্য ঢাকায় থাকতাম। লকডাউনে পড়ালেখা তো হচ্ছে না উল্টো ঢাকার বাসায় খরচ আর খরচ। অহেতুক খরচ করার মতো সামর্থ্য আমাদের নেই। বরিশালের মুলাদি এলাকার ইসমাইল হোসেন মাছের ব্যবসা করতেন ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জে। থাকতেন ঢাকার যাত্রাবাড়ীতে।

তিনি জানান, ব্যবসায় আর আগের মতো রোজগার নেই। ৩ সন্তান আর স্ত্রীকে নিয়ে কষ্ট করে খেয়ে না খেয়ে দিন কাটাতে হচ্ছে। গত বছরের লকডাউনে যা পুঁজি ছিল তা অনেকখানি শেষ হয়েছে। তাই এখন যা আছে তা দিয়ে গ্রামে ব্যবসা করে চলার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। একই কথা জানালেন পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জের সালাম শিকদার।

ঘাটে আসা পিকআপভ্যানের চালক রফিকুল জানান, এখনতো আমরা প্রায়ই এমন যাত্রীদের ট্রিপ পাই। বহু মানুষ গ্রামে যাইতাছেগা একবারে। কী করবো মানুষ, কাজ নাই, কাম নাই। এক সপ্তাহেই ঢাকা থেকে বরিশালে এমন ৩-৪টা ট্রিপে গেছি।



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


ঈদের নামাজ পড়ার নিয়ম

ঈদের-নামাজ-পড়ার-নিয়ম

টানা ৪০ দিন মসজিদে জামায়াতের সহিত পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ে সাইকেল পুরস্কার পেল ৯ শিশু

টানা-৪০-দিন-মসজিদে-জামায়াতের-সহিত-পাঁচ-ওয়াক্ত-নামাজ-পড়ে-সাইকেল-পুরস্কার-পেল-৯-শিশু

দৃষ্টিহীন শিক্ষার্থীদের কোরআন শেখাচ্ছেন দৃষ্টিহীন শিক্ষক

দৃষ্টিহীন-শিক্ষার্থীদের-কোরআন-শেখাচ্ছেন-দৃষ্টিহীন-শিক্ষক ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


যে দুই ব্লাড গ্রুপের মানুষের করোনা সংক্রমিত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি!

যে-দুই-ব্লাড-গ্রুপের-মানুষের-করোনা-সংক্রমিত-হওয়ার-সম্ভাবনা-বেশি-

যে কারণে অন্ধ হয়ে যাচ্ছেন করোনা থেকে সেরে ওঠা রোগীরা

যে-কারণে-অন্ধ-হয়ে-যাচ্ছেন-করোনা-থেকে-সেরে-ওঠা-রোগীরা

একসঙ্গে পাঁচকন্যা ও চার ছেলেসন্তানের জন্ম দিলেন হালিমা! সুস্থ আছেন সবাই

একসঙ্গে-পাঁচকন্যা-ও-চার-ছেলেসন্তানের-জন্ম-দিলেন-হালিমা--সুস্থ-আছেন-সবাই এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


ইসরায়েলের বিপক্ষে ব্যবস্থা নিতে সৌদির আহবান

এটি সহজে সারবে না, নেই স্থায়ী চিকিৎসা, বড় বিপদে রুবেল

মুসলিম রাষ্ট্রগুলো এক হলে ইসরায়েলকে দাঁতভাঙা জবাব দেয়া যাবে

কানাডায় পাল্টা সমাবেশ করতে এসে তাড়া খেয়ে পালিয়েছে ইহুদিরা।

বিচিত্র জগৎ


পাত্র দু’য়ের ঘরের নামতা বলতে না পারায় বিয়ে ভেঙে দিলেন পাত্রী

পাত্র-দু’য়ের-ঘরের-নামতা-বলতে-না-পারায়-বিয়ে-ভেঙে-দিলেন-পাত্রী

মায়ের মৃত্যুর প্রতিশোধ নিতে ধর্ষণের পর ১০০ শিশু হত্যা : টুকরো টুকরো লাশ গলিয়ে দিতেন অ্যাসিডে!

মায়ের-মৃত্যুর-প্রতিশোধ-নিতে-ধর্ষণের-পর-১০০-শিশু-হত্যা-টুকরো-টুকরো-লাশ-গলিয়ে-দিতেন-অ্যাসিডে-

এক ভূমিকম্পে বন্ধ হওয়া শতবর্ষী ঘড়ি আরেক ভূমিকম্পে চালু!

এক-ভূমিকম্পে-বন্ধ-হওয়া-শতবর্ষী-ঘড়ি-আরেক-ভূমিকম্পে-চালু- বিচিত্র জগতের সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ