বরগুনা আদালত প্রাঙ্গণে মিন্নি ও সুনাম দেবনাথকে নিয়ে ক্ষোভ

১১:৩৫:১৮ বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সর্বশেষ সংবাদ :

     • বাংলাদেশও দেখিয়ে দিলো লেগ স্পিনারের ভেলকি!     • ম্যাচ হেরে শুধুমাত্র বাংলাদেশের মাহমুদুল্লাহ'র প্রশংসা করলেন মাসাকাদজা     • টি-টোয়েন্টিতে মুস্তাফিজের ফিফটি     • রাজধানীর আরও দুই ক্যাসিনোতে র‌্যাবের অভিযান, খবর পেয়ে সবাই ক্লাব ছেড়ে পালিয়েছে     • দারুণ জয়ে বিশাল অবদান তরুণ টাইগার বিপ্লবের আগুন ঝড়া বোলিং তাণ্ডব      • তাণ্ডব চালিয়ে মাহমুদউল্লাহ ম্যাচসেরা নির্বাচিত      • জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ     • বাড়ির পাশ দিয়ে প্রেমিকের লা'শ নিয়ে যাওয়া দেখে প্রেমিকার আ'ত্মহ'ত্যা!     • শিশু মিমিকে গ'ণধ'র্ষণের পর হ'ত্যার দায়ে দুইজনকে ফাঁ'সিতে ঝুলিয়ে মৃ'ত্যুদ'ণ্ড কার্যকরের নির্দেশ     • পরপর ৬ উইকেট তুলে নিয়ে জয়ের পথে টাইগাররা!

মঙ্গলবার, ০৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ০৯:৫৬:৩০

বরগুনা আদালত প্রাঙ্গণে মিন্নি ও সুনাম দেবনাথকে নিয়ে ক্ষোভ

বরগুনা আদালত প্রাঙ্গণে মিন্নি ও সুনাম দেবনাথকে নিয়ে ক্ষোভ

বরগুনা থেকে : বরগুনার আলোচিত রিফাত শরীফ হ'ত্যা মামলায় গ্রেফতারের পর কারাগারে থাকা ১৪ জন অভিযুক্তকে মঙ্গলবার আদালতে হাজির করে পুলিশ। 

মামলার দিন ধার্য থাকায় সকালে বরগুনার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে তাদের হাজির করা হয়।

আদালতে হাজিরের জন্য একটি প্রিজন ভ্যানে করে বরগুনা জেলা কারাগার থেকে প্রথমে ১৩ পুরুষ অভিযুক্তকে আনা হয়। এরপর একই ভ্যানে করে রিফাতের স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নিকে আদালতে হাজির করে পুলিশ।

১৩ পুরুষ অভিযুক্তকে বহন করা প্রিজন ভ্যানটি আদালত প্রাঙ্গণে সাংবাদিকদের কাছে আসা মাত্রই ভেতর থেকে এক অভিযুক্ত উচ্চস্বরে বলেন, ‘সুনাম দেবনাথ কিন্তু আমাদের লিডার।’

এরপর আদালতের কার্যক্রম শেষে এই অভিযুক্তদের আদালত থেকে প্রিজন ভ্যানে তোলার সময় আবার অভিযুক্তরা সাংবাদিকদের সামনে উচ্চস্বরে বলেন, ‘অন্যায় অবিচার হচ্ছে।’ এরপর পাশ থেকে কেউ একজন অভিযুক্তদের বলেন, ‘এই কথা কম কও।’

এরপর আবার অভিযুক্তরা উচ্চস্বরে বলেন, ‘যে করছে, তারে দেছে সাত নাম্বার। মিন্নি কেন সাত নাম্বার? সুনাম দেবনাথ কেন আসামি নাই।’

সুনাম দেবনাথ বরগুনা-১ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভুর ছেলে ও জেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক।

তবে রিফাত হ'ত্যাকাণ্ডে অভিযুক্তদের সুনাম দেবনাথকে নিয়ে এমন উচ্চস্বরে মন্তব্যের সমালোচনা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন আদালত প্রাঙ্গণে উপস্থিত থাকা অনেকে। 

নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন বলেন, দীর্ঘ তদন্ত শেষে চার্জশিট দাখিলের পর সুনাম দেবনাথকে নিয়ে এমন মন্তব্য অভিযুক্তদের ষ'ড়য'ন্ত্র মাত্র। এসব অভিযুক্ত প্রত্যেকে এক বা একাধিকবার রিমান্ড শেষে আদালতে রিফাত হ'ত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে স্বী'কারো'ক্তিমূলক জ'বানব'ন্দি দিয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সুমন দেবনাথ যদি এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকতো তাহলে আ'সা'মিরা তাদের স্বী'কারো'ক্তিতে সে কথা উল্লেখ করত। কিন্তু তারা তা করেনি। এটা দিয়েই প্রমাণিত হয় সুনাম দেবনাথের সম্মান ক্ষুণ্ন ও হ'য়রা'নি করতেই অভিযুক্তরা এমন মন্তব্য করেছে।

এ বিষয়ে সুনাম দেবনাথ বলেন, রিফাত হ'ত্যাকাণ্ড এবং এ হ'ত্যাকাণ্ডে জড়িতদের সঙ্গে আমার কোনো সম্পর্ক নেই। কখনো ছিলও না। আমি এ হ'ত্যাকাণ্ডে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই।

তিনি বলেন, এমন একটি আলোচিত হ'ত্যাকাণ্ডের সুষ্ঠু তদন্ত শেষে পুলিশ চার্জশিট দাখিল করেছে। হ'ত্যাকাণ্ডে অভিযুক্ত ও জড়িতদের স্বীকারোক্তি ও তদন্তে পাওয়া সঠিক তথ্য উপাত্ত দিয়েই পুলিশ চার্জশিট দাখিল করেছে। এমন একটি আলোচিত হ'ত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকলে কারোরই রেহাই পাওয়ার সুযোগ নেই। এ ঘটনায় জড়িত থাকলে আমিও রেহাই পেতাম না।

সুনাম দেবনাথ বলেন, সকল অভিযুক্তরাই রিমান্ড শেষে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। এ হ'ত্যাকাণ্ডে আমি জড়িত না থাকায় স্বী'কারো'ক্তিতে আমার নাম কেউ বলেনি। কিন্তু চার্জশিট দাখিলের পর অভিযুক্তদের আমার বিরুদ্ধে এমন মন্তব্য ষ'ড়য'ন্ত্রমূলক। একটি মহল আমার বাবা ও আমার সম্মান ক্ষু'ণ্ন ও হ'য়রা'নি করতে অভিযুক্তদের প্ররোচণা দিচ্ছে।



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


কঠোর মায়েদের সন্তানের ভবিষ্যত উজ্জ্বল হয় - গবেষণা বলছে

কঠোর-মায়েদের-সন্তানের-ভবিষ্যত-উজ্জ্বল-হয়-গবেষণা-বলছে

পর্যাপ্ত টাকা যোগাড় করতে না পেরে নিজের লিভার দিয়ে মেয়েকে বাঁচালেন মা

পর্যাপ্ত-টাকা-যোগাড়-করতে-না-পেরে-নিজের-লিভার-দিয়ে-মেয়েকে-বাঁচালেন-মা

৪০-৪৫ বছর ধরে কাচ চিবিয়ে খেয়ে দিব্যি বেঁচে আছেন এই ব্যক্তি

৪০-৪৫-বছর-ধরে-কাচ-চিবিয়ে-খেয়ে-দিব্যি-বেঁচে-আছেন-এই-ব্যক্তি এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


কি রোগ সেটা ডাক্তার শোনার আগেই আয়া এসে রোগীর কাপড় খুলে নেয়

ফাঁসির রায় শুনে হাসলেন আসামি, আর কাঁদলেন বাদী

ভারতের বিপক্ষে পাঁচটি ওয়ানডে এবং শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুটি টেস্ট ও তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ!

একসঙ্গে ঘুমাচ্ছিল, দুই ভাইয়ের সেই ঘুমকে চিরনিদ্রায় পরিণত করলো বিষধর সাপ

পাঠকই লেখক


শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি যে, এই গ্রামের সবাই দৃষ্টিহীন! কারণ...

শুনতে-অবাক-লাগলেও-এটাই-সত্যি-যে-এই-গ্রামের-সবাই-দৃষ্টিহীন--কারণ

ছাগল চুরির ৪১ বছর পর ধরা পড়লো চোর!

ছাগল-চুরির-৪১-বছর-পর-ধরা-পড়লো-চোর-

মহাকাশে সিমেন্ট গুলছে নাসার বিজ্ঞানিরা, চাঁদে বানানো হবে বাড়ি

মহাকাশে-সিমেন্ট-গুলছে-নাসার-বিজ্ঞানিরা-চাঁদে-বানানো-হবে-বাড়ি পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ