ডাক্তার হতে চাই কিন্তু আমার পরিবারের সে সামর্থ্য নেই;-গোল্ডেন জিপিএ-৫ পাওয়া সুমাইয়া

০৯:১৫:২৮ বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০

সর্বশেষ সংবাদ :

     • দুষ্টের দমন ও শিষ্টের লালন করে আওয়ামী লীগ : ওবায়দুল কাদের     • ম্যারাডোনার ময়নাতদন্ত রিপোর্টে যা জানা গেল     • ভারতে থেকে আসামকে বিচ্ছিন্ন করতে উলফা গেরিলাদের প্রশিক্ষণ পাকিস্তানে     • মুসলিমদের উচিত বিয়ের আগে নারীদের যৌন সম্পর্ককে স্বীকৃতি দেওয়া: ডেনমার্কের মন্ত্রী     • জোরপূর্বক সৌদি প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা, গ্রেপ্তার শ্বশুর     • বিরাট কোহলিই সর্বকালের সেরা ক্রিকেটার : অ্যারন ফিঞ্চ     • হাত দিয়ে গোল: ম্যারাডোনাকে নিয়ে যা বললেন সেই ইংলিশ গোলকিপার     • 'মরে গেলে আবারও আমি ম্যারাডোনা হয়ে জন্ম নিতে চাই'     • অভ্যুত্থানচেষ্টার দায়ে তুরস্কে সামরিক কর্মকর্তার মুত্যুদণ্ড     • ভাগ্নির নাভি ও যৌনা‌ঙ্গে গরম খু‌ন্তির ছ্যাঁকা, মামি গ্রেপ্তার

মঙ্গলবার, ০৯ জুন, ২০২০, ১০:৪৬:৫৪

ডাক্তার হতে চাই কিন্তু আমার পরিবারের সে সামর্থ্য নেই;-গোল্ডেন জিপিএ-৫ পাওয়া সুমাইয়া

 ডাক্তার হতে চাই কিন্তু আমার পরিবারের সে সামর্থ্য নেই;-গোল্ডেন জিপিএ-৫ পাওয়া সুমাইয়া

শিবচর (মাদারীপুর): দর্জি বাবা মৃত্যুর ৭ বছর পেরিয়েছে। দরিদ্র বাবার দেওয়া ইটের গাথুনির ঘরে সমর্থ্য হয়নি আর পলেস্তারা দেওয়ার। ডোয়াও রয়ে গেছে মাটির প্রলেপ। আষ্টেপৃষ্টে ঘেরা দারিদ্রতার মাঝে মায়ের সেদিকে খুব একটা খেয়ালও নেই। কারণ সংসারটাই চলে মেয়ে ও জামাইদের দেওয়া যৎসামান্য অর্থে। এরইমাঝে পরিবারটিতে আশার আলো হয়ে জ্ব'লে উঠেছে ছোট মেয়ে সুমাইয়া ফারহানা। 

পরিবারের হাজারো অভাব অনটন পেছনে ফেলে বই খাতাসহ শিক্ষকদের সহায়তায় লেখাপড়া চালিয়ে চলতি বছর এসএসসি পরীক্ষায় গোল্ডেন জিপিএ-৫ পেয়েছে শিবচরের পাচ্চর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সুমাইয়া। ভাল কলেজে ভর্তির ইচ্ছা থাকলেও অর্থাভাবে সে আশায় ম্লান সুমাইয়া ও তার পরিবারের। পরিবারের এই ছোট মেয়েটির ডাক্তার হওয়ার স্বপ্ন পূরণ চান সকলের সহযোগিতার।

সরেজমিন জানা যায়, পেশায় দর্জি দেলোয়ার হোসেন শ্বশুরের দেওয়া জমিতে মাদারীপুরের শিবচর উপজেলার মাদবরচর ইউনিয়নের সাড়ে এগার রশি লপ্তিকান্দি গ্রামে বসবাস শুরু করেন ৭ বছর আগে । সংসার চালাতে ঢাকার সাভার, খুলনাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ঘুরেঘুরে দর্জির কাজ করে কষ্টে চলছিল তাদের পরিবার। শিবচরে শ্বশুরের দেওয়া জমিতে প্রায় ৭ বছর আগে ঘর তোলার কাজ শুরু করেন তিনি। ঘর অসম্পূর্ন রেখেই শ্বাসকষ্টে দেলোয়ারের মৃ'ত্যু হয়। পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম স্বামীকে হারিয়ে চারদিকে অন্ধকার দেখেন মা সালেহা বেগম। নিজে ঘরে বসে দর্জি কাজ শুরু করেন। বড় মেয়ে তাসলিমা কেজি স্কুলে চাকুরি করে মার সাথে সাথে সংসারের হাল ধরেন। মেয়ে জামাইদের আর্থিক সহায়তায় কোনমতে চালিয়ে যাচ্ছেন সংসার। অর্থাভাবে ২ মেয়েকে বিয়ে দিতে হয় অল্প বয়সেই। ৬ মেয়ের সর্ব কনিষ্ঠ সুমাইয়া ফারহানা। আর্থিক অনটনের সংসারে সুমাইয়ার লেখাপড়া চালিয়ে নেওয়ার সাহস প্রথমত অবস্থাতে না হলেও লেখাপড়ার প্রতি ওর প্রবল টান থাকায় বোনদের সহায়তায় লেখাপড়া চালিয়ে যায়।

চলতি বছর এসএসসি পরীক্ষায় বিজ্ঞান বিভাগ থেকে অংশ গ্রহন করে সুমাইয়া। পরীক্ষার ফলাফলে জিপিএ-৫ গোল্ডেন অর্জন করে সে। সুমাইয়ার স্বপ্ন ডাক্তার হওয়ার। ডাক্তারতো অনেক দূরের কথা ভালো কলেজে ভর্তি হওয়া নিয়েই রয়েছে দুশ্চিন্তা। সুমাইয়ার লেখাপড়া চালিয়ে যেতে পরিবারটি চায় সকলের সহযোগিতা।

মেধাবী সুমাইয়া বলেন, স্যারদের ও স্কুল কতৃপক্ষের সহায়তায়ই লেখাপড়া করতে পেরেছি। স্কুলে আমার কাছ থেকে কোন টাকা নেয়নি উল্টো আমাকে বই খাতা প্রাইভেট ফ্রি পড়িয়েছে। আমি ডাক্তার হতে চাই। ভালো একটি কলেজে পড়তে ইচ্ছে করে । কিন্তু আমার পরিবারের সে সামর্থ্য নেই।

সুমাইয়ার মা সালেহা বেগম বলেন, ওর বাবা মা'রা যাওয়ার পর নিজেই দর্জির কাজ করেছি। এখন আর চোখে দেখি না। মেয়ে জামাইরা সংসার চালায়। সুমাইয়া পড়েছে সরকারের বৃত্তি ও স্যারদের দেওয়া বই খাতা ও সহায়তায়। এখনো সহায়তা না পেলে ওর লেখাপড়া চালিয়ে যাওয়া আমাদের জন্য খুবই কষ্টের। 

পাঁচ্চর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সামসুল হক বলেন, পরিবারটিতে কোন উপার্জনক্ষম ব্যাক্তি না থাকায় অভাব অনটনেই চলে ওদের সংসার। কিন্তু সুমাইয়া অদম্য মেধাবী। তাই আমরা শুরু থেকেই সুমাইয়াকে বই খাতা প্রাইভেটসহ সকল ধরনের সহযোগিতা করেছি। সুমাইয়া সুযোগ পেলে সমাজের দৃষ্টান্ত হবে।-কালের কণ্ঠ



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


স্বামী-সন্তান হারিয়েছি, ঈমান ত্যাগ করিনি : নওমুসলিম নারীর আত্মত্যাগের কথা

স্বামী-সন্তান-হারিয়েছি-ঈমান-ত্যাগ-করিনি-নওমুসলিম-নারীর-আত্মত্যাগের-কথা

পবিত্র কাবা দৃষ্টিগোচর হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আমাদের অনেকেই কেঁদে ফেললেন

পবিত্র-কাবা-দৃষ্টিগোচর-হওয়ার-সঙ্গে-সঙ্গে-আমাদের-অনেকেই-কেঁদে-ফেললেন

পবিত্র কোরআনে বর্ণিত ত্বীন এখন চাষ হচ্ছে গাজীপুরের বারতোপা গ্রামে

পবিত্র-কোরআনে-বর্ণিত-ত্বীন-এখন-চাষ-হচ্ছে-গাজীপুরের-বারতোপা-গ্রামে ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


তিন বউ মিলে ২২ বছর বয়সী স্বামীর জন্য চতুর্থ বিয়ের পাত্রী খুঁজছেন!

তিন-বউ-মিলে-২২-বছর-বয়সী-স্বামীর-জন্য-চতুর্থ-বিয়ের-পাত্রী-খুঁজছেন-

সাল ১৯৪৭ : দেশভাগের নেপথ্যে যে ঐতিহাসিক প্রেমকাহিনী

সাল-১৯৪৭-দেশভাগের-নেপথ্যে-যে-ঐতিহাসিক-প্রেমকাহিনী

করোনা থেকে হচ্ছে হার্ট অ্যাটাক!

করোনা-থেকে-হচ্ছে-হার্ট-অ্যাটাক- এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


থামছেই না ট্রাম্পের পাগলামি, পাঁচ ঘণ্টার ব্যবধানে ঘটালেন আরেক কাণ্ড

যেসব দেশের মুসলিমদের আর ভিসা দেবে না সংযুক্ত আরব আমিরাত

মুসলিম নেতা আবদুল নাসেরের নাগরিকত্ব বাতিল করেছে অস্ট্রেলিয়া

ধর্ষণ করলে ধর্ষকের পুরুষত্ব হরণ করা হবে; পাকিস্তান সংসদে আইন পাস

বিচিত্র জগৎ


জানাজা শেষে মুচকি হেসে বাসায় ফিরতো বাপ্পি, রাত হলেই কবরের লাশ তুলে বাসায় নিতো!

জানাজা-শেষে-মুচকি-হেসে-বাসায়-ফিরতো-বাপ্পি-রাত-হলেই-কবরের-লাশ-তুলে-বাসায়-নিতো-

৭৫ বছর বয়সী প্রেমজি প্রতিদিন ২৫ কোটি টাকা দান করেন!

৭৫-বছর-বয়সী-প্রেমজি-প্রতিদিন-২৫-কোটি-টাকা-দান-করেন-

'৪৯ বছর বয়সেই সারা বিশ্বে ১৫০ শিশুর বাবা আমি!'

-৪৯-বছর-বয়সেই-সারা-বিশ্বে-১৫০-শিশুর-বাবা-আমি-- বিচিত্র জগতের সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ