০৯:৪০:৫০ বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯

সর্বশেষ সংবাদ :

     • ইংল্যান্ডকে হারিয়ে বাংলাদেশের সেমি-ফাইনালের পথ সহজ করল অস্ট্রেলিয়া     • হোটেলে মিললো ২ বস্তা কনডম ও ৩৫০ পিচ ইয়াবা     • সেই ৯২’র বিশ্বকাপের সঙ্গে এত মিল পাকিস্তানের!     • জীবনের সবচেয়ে 'বড় ভুলের' কথা স্বীকার করেছেন বিল গেটস     • চলতি বিশ্বকাপে টানা তৃতীয়বারের মতো মিলে গেল জ্যোতিষী টিয়া ‘মদনা’র ভবিষ্যদ্বাণী     • ইংল্যান্ডের হারের পর টাইগারদের সামনে সেমিতে যাওয়ার নতুন সমীকরন     • অস্ট্রেলিয়ার সাথে হেরে সেমিতে যাওয়ার ব্যাপারে যা বললেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক মর্গান     • শাহরুখ খানের হাতে ছবি নেই কেন?     • ফার্মেসিতে ঢুকে নিজেই চিকিৎসা চাইল আহত কুকুর, চিকিৎসা শেষে ধন্যবাদও জানালো     • আমি খেলা দেখতে মাঠে গেলেই বাংলাদেশ জিতে : ফেরদৌস

সোমবার, ০৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৫, ১০:৪২:৫৮

মাটির নিচে পাওয়া সোনা-রূপাভর্তি কৌটার রহস্য

মাটির নিচে পাওয়া সোনা-রূপাভর্তি কৌটার রহস্য

মোজাম্মেল হোসেন সজল, মুন্সীগঞ্জ থেকে: মুন্সীগঞ্জে মাটির নিচ থেকে উদ্ধার করা সোনা-রূপা ভর্তি কৌটার রহস্য উদ্ঘাটিত হয়েছে।  অনুসন্ধানে প্রকৃত তথ্য বেরিয়ে এসেছে।  এগুলো প্রায় চার দশক ধরে মাটির নিচেই ছিল।  এসব সোনা-রূপার গহনাগুলো ছিল হিন্দু সম্প্রদায়ের রথের জগন্নাথ, বলরাম ও সুভদ্রা বিগ্রহের বলে জানা গেছে।  


রোববার সদর উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন ইদ্রাকপুরে মাটি খননের সময় দুইশ' গ্রাম ওজনের সোনা ও রূপাসহ তামার কৌটা উদ্ধার করা হয়।  নুরুল ইসলাম কমান্ডারের বাড়িতে বহুতল ভবন নির্মাণের সময় শ্রমিকের সাবলের আঘাতে তামার কৌটার মোটকা খুলে গেলে গহনাগুলো বেরিয়ে আসে।
 
প্রাচীন কানের দুল, মাটলি, বাকু, স্বনেৃর পুঁথি, রৌপ্য ও রৌপ্যের মোহরসহ কৌটাটি ট্রেজারিতে জমা রেখেছেন ইউএনও সারাবান তাহুরা।  রথের তিনটি বিগ্রহের গহনাগুলোর দাম অনেক।  এর সংরক্ষণকারী বাড়িটি মেয়েদের দান করে দেয়ার পর অসুস্থ হয়ে মারা যাওয়ার কারণে এই মূল্যবান সম্পদ মাটির নিচেই চাপা থেকে যায়।

ইদ্রাকপুরের প্রবীণ বাসিন্দা রমেন কুমার বনিক রবি গণমাধ্যমকে জানান, উদ্ধার হওয়া গহনাগুলোর বাড়িটির পূর্ব মালিক ছিলেন হর কান্ত পাল।  শহরে ইদ্রাকপুরের লক্ষী নারায়ন জিউর মন্দির থেকে প্রায় দুইশ বছর ধরে নিয়মিত রথ যাত্রা হত।  জগন্নাথ, বলরাম ও সুভদ্রা এই তিনটি বিগ্রহকে গহনা পরানো হত।

তিনি জানান, গহনাগুলো মন্দির থেকে চুরির আশঙ্কায় তৎকালীন কর্মকর্তা হর কান্ত পালের তত্ত্বাবধানে ছিল।  এই রথ ইদ্রাকপুরস্থ উপজেলা পরিষদ (তৎকালীন থানা পরিষদ) কার্যালয়ের প্রধান গেটের পাশে এবং মন্দিরের উত্তর-পশ্চিম কোণে মন্দিরের নিজস্ব জায়গায় রাখা হত।  

রমেন কুমার বনিক জানান, স্বাধীনতা কিছু পর এই বিগ্রহ ও রথের ঘোড়া ঢাকার তাঁতী বাজারস্থ জগন্নাথ জিউর মন্দিরে দান করা হয়।  এখনো ওই মন্দিরে এসব বিগ্রহ রয়েছে।  কিন্তু এই পুরনো বিগ্রহের গহনা হার কান্ত পালের কাছেই রয়ে যায়।  নিরাপত্তার কারণে জগন্নাথ, বলরাম ও সুভদ্রা বিগ্রহের গহনা মাটির হারির ভেতরে একটি তামার কৌটায় কাপড় দিয়ে মুড়িয়ে রাখেন।  

তিনি জানান, হর কান্ত পালের কোনো পুত্র ছিল না।  তাই দুই কন্যা ভানু রানী পাল ও শান্তি রানী পালকে প্রায় সাড়ে আট শতাংশের বাড়িটি দান করে যান তিনি।  দানের বছর তিনেক পর ৩০/৩৫ বছর আগে কন্যারা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নরুল ইসলামের কাছে বাড়িটি বিক্রি করে দেন।  সে সময় হর কান্ত পাল সস্ত্রীক মেয়ের বাড়ি মিরকাদিমের নগর কসবায় বসবাস করছিলেন। কিন্তু জমি বিক্রির বছর তিনেক পর হর কান্ত পাল মারা যান।

রমেন কুমার বনিক জানান, মুত্যুর কয়েক বছর আগে থেকেই তিনি বার্ধক্যজনিত কারণে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন।  তিনি তখনকথা বলতে পারতেন না।  তাই হয়তো মৃত্যুর আগে মাটির নিচে রাখা গহনাগুলোর কথা বলে যেতে পারেননি তিনি।  এর ২/৩ বছর পরই হর কান্ত পালের স্ত্রীও মারা যান।  হর কান্ত পালের কন্যা শান্তি রানী পাল (৭২) রোববার গহনা উদ্ধারের খবর পেয়ে তাদের পুরনো বাড়িতে আসেন।  

তিনি বলেন, এসব গহনা যে মাটির নিচে আছে এটি তার বাবা কখনো বলেননি।  গহনাগুলো তাদের নিজস্ব বা পারিবারিক ছিল না।  এটি মন্দিরের গহনা এবং তা রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব ছিলেন বাবা।  

জানা গেছে, হর কান্ত পাল ছিলেন একজন স্বর্ণকার।  শহরের সদর রোডের বাজারের কাছে পালের দোকানের বিপরীতেই ছিল তার স্বর্ণের দোকান।  এটি তখন হরকান্ত পোদ্দারের দোকান হিসেবেই পরিচিত ছিল।  ওই সময় তাকে পোদ্দার হিসেবেই সবাই চিনতো।
 
৬২ বছরের বৃদ্ধ রমেন কুমার বনিক রবি জানান, তিনি নিজের চোখে ৫০ বছর আগে এসব গহনা ঠাকুরকে পরাতে দেখেছেন।  তখন রবির বয়স ছিল বার বছর।  বর্তমানে মুন্সীগঞ্জ বাজারের বস্ত্র ব্যবসায়ী তিনি।
 
জেলা প্রশাসক মো. সাইফুল হাসান বাদল গণমাধ্যমকে জানান, মাটির নিচে পাওয়া সোনা-রূপার খোঁজ-খবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।
৬ জুলাই,২০১৫/এমটিনিউজ২৪/এমআর/এসএম



খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


জর্ডানে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক কুরআন প্রতিযোগিতায় প্রথম হলেন বাংলাদেশের ত্বকি

জর্ডানে-অনুষ্ঠিত-আন্তর্জাতিক-কুরআন-প্রতিযোগিতায়-প্রথম-হলেন-বাংলাদেশের-ত্বকি

দীর্ঘ ১৮০ বছর অপেক্ষার পর মসজিদে নামাজ পড়ার অনুমতি পেল গ্রিসের মুসল্লিরা

দীর্ঘ-১৮০-বছর-অপেক্ষার-পর-মসজিদে-নামাজ-পড়ার-অনুমতি-পেল-গ্রিসের-মুসল্লিরা

যে দোয়াটি পড়লে ৭০ টি বিপদ থেকে মুক্তি পাবেন, সর্বনিম্নটি হলো দারিদ্রতা

যে-দোয়াটি-পড়লে-৭০-টি-বিপদ-থেকে-মুক্তি-পাবেন-সর্বনিম্নটি-হলো-দারিদ্রতা ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


এবার থেকে খুব সস্তায় বিমানে ভ্রমণ, তবে বসে নয় দাঁড়িয়ে যেতে হবে যাত্রীকে!

এবার-থেকে-খুব-সস্তায়-বিমানে-ভ্রমণ-তবে-বসে-নয়-দাঁড়িয়ে-যেতে-হবে-যাত্রীকে-

৩ কিলোমিটার পায়ে হেঁটে টিউশনি করা মেয়েটাই আজ ম্যাজিস্ট্রেট

৩-কিলোমিটার-পায়ে-হেঁটে-টিউশনি-করা-মেয়েটাই-আজ-ম্যাজিস্ট্রেট

মস্তিষ্ক থেকে হার্ট হয়ে শরীরের ছোট-বড় সব অঙ্গেরই ক্ষমতা বাড়ায় পালংশাক

মস্তিষ্ক-থেকে-হার্ট-হয়ে-শরীরের-ছোট-বড়-সব-অঙ্গেরই-ক্ষমতা-বাড়ায়-পালংশাক এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


বাংলাদেশকে ডুবাতে না পেরে শেষমেশ ম্যাচ হারের লজ্জায় যা বললেন আফগান অধিনায়ক

ক্রিকেটে নতুন এক ইতিহাস তৈরি করে ফেললেন সাকিব

সাকিবের ৫ উইকেট না, জয়ের টার্নিং পয়েন্ট হিসেবে যা বললেন মাশরাফি

বাংলাদেশের এমন জয়ে যা লিখলো ভারতীয় মিডিয়া

পাঠকই লেখক


ফার্মেসিতে ঢুকে নিজেই চিকিৎসা চাইল আহত কুকুর, চিকিৎসা শেষে ধন্যবাদও জানালো

ফার্মেসিতে-ঢুকে-নিজেই-চিকিৎসা-চাইল-আহত-কুকুর-চিকিৎসা-শেষে-ধন্যবাদও-জানালো

অনলাইনে ছবি দেখে বাড়ি কেনার অর্ডার দিয়ে পেলেন ‘এক ফালি ঘাস’

অনলাইনে-ছবি-দেখে-বাড়ি-কেনার-অর্ডার-দিয়ে-পেলেন-‘এক-ফালি-ঘাস’

জীবনে প্রথম বারের মত এক জোড়া জুতা পেয়ে আনন্দে আত্মহারা হয়ে নাচতে শুরু করেন নারী

জীবনে-প্রথম-বারের-মত-এক-জোড়া-জুতা-পেয়ে-আনন্দে-আত্মহারা-হয়ে-নাচতে-শুরু-করেন-নারী পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ