রাস্তার কুকুরদের প্রতিদিন দুপুরে মাংস-ভাত খাওয়াতে ৩ লাখ টাকা ঋণ, গয়না বিক্রি!

০৩:৪০:৫২ শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সর্বশেষ সংবাদ :

     • ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কা সিরিজে পাকিস্তানের স্কোয়াড ঘোষণা     • গোপনে শিখর ধাওয়ানের বিশেষ মুহুর্তের ভিডিও ধারণ করে অনলাইনে পোস্ট!     • অভিযান চলবে, কাউকে ছাড় দেয়া হবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী     • এবার রাশিয়ার দ্বারস্থ তালেবান     • মা হলেন নুসরাত হ'ত্যার আসামি কারাবন্দি কামরুন নাহার মনি     • ‘পাকিস্তান সফরে না আসলে পিএসএলে নিষিদ্ধ শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটরা’      • স্মৃতিচারণ করে বিদায় বেলায় মাশরাফিকে যে পরামর্শ দিয়ে গেলেন মাসাকাদজা     • বাজারে নতুন স্মার্ট সিলিং ফ্যান, বাতাস দেয়ার সঙ্গে তাড়াবে মশা!     • অপরাধী যেই হোক ছাড় পাবে না: শেখ সেলিম     • ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট একজন কাঠুরিয়া, ভারতের প্রেসিডেন্ট একজন চা বিক্রেতা: ওমর ফারুক চৌধুরী

শুক্রবার, ২৩ আগস্ট, ২০১৯, ০১:০৭:৪৬

রাস্তার কুকুরদের প্রতিদিন দুপুরে মাংস-ভাত খাওয়াতে ৩ লাখ টাকা ঋণ, গয়না বিক্রি!

রাস্তার কুকুরদের প্রতিদিন দুপুরে মাংস-ভাত খাওয়াতে ৩ লাখ টাকা ঋণ, গয়না বিক্রি!

বিচিত্র জগৎ ডেস্ক : রাস্তার প্রায় ৪০০টি কুকুরকে প্রতিদিন দুপুরে মাংস-ভাত খাওয়ান তিনি। এজন্য প্রতি মাসে তার ব্যয় হয় প্রায় ৪০ হাজার টাকা। তিনি প্রায় কয়েক বছর ধরেই প্রতিদিন কুকুরদের খাইয়ে চলেছেন।

এমন কাজে তার পরিবার ও প্রতিবেশীরা বিরোধিতা করেছেন। তবুও তিনি পিছপা হননি। অন্যদিকে, রয়েছে প্রচুর অর্থব্যয়। তাই তিনি ব্যাংক থেকে ৩ লাখ ৩০ হাজার টাকা ঋণ নিয়েছিলেন।

এছাড়াও নিজের প্রায় ২ লাখ টাকার সোনার গয়না বেচে কুকুরদের খাওয়ার ব্যবস্থা করেছেন। এছাড়াও রাস্তার কুকুরগুলির চিকিৎসায় তিনি প্রচুর অর্থব্যয় করেন। তবে তিনি পথকুকুরদের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তিত।

আর এ কাজ করেন ভারতের পশ্চিমকল্যাণী বি ব্লকের এমএ পাস গৃহবধূ নীলাঞ্জনা বিশ্বাস। তিনি বড় হয়েছেন খড়গপুরে। তার বাবা খড়গপুর আইআইটির প্রাক্তন অধ্যাপক। পশু-পাখির প্রতি তার ভালবাসা ছোট থেকেই।

কলকাতার সংবাদ প্রতিদিনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নিজের ব্যক্তিগত সঞ্চয় তিনি ব্যয় করে চলেছেন পথকুকুরদের জন্য।

নীলাঞ্জনা বিশ্বাস জানান, পথ কুকুরদের প্রতিদিন দুপুরে মুরগির মাংস ও ভাত খাওয়ানো হয়। এজন্য তিনজন কর্মী রয়েছেন। তাদের সাম্মানিক বাবদ ১০ হাজার টাকা দেয়া হয়। কর্মী সঞ্জীব দাস টোটো চালিয়ে কল্যাণী শহরের বিভিন্ন অঞ্চলে কুকুরের খাবার নিয়ে যান।পাশাপাশি, নীলাঞ্জনা বিশ্বাস নিজের স্কুটারে করেও একইভাবে কিছু স্থানে গিয়ে খাবার দেন। কখনও কখনও মায়ের সঙ্গে যায় ছেলে আশুতোষ‌ও।

পত্রিকাটির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বাড়িতে কুকুরের রান্নার জন্য আলাদা ঘর রয়েছে। রয়েছে মাংস রাখার জন্য ফ্রিজও।

অন্যদিকে, কুকুরদের চিকিৎসার দিকটি নিজেই দেখেন নীলাঞ্জনা বিশ্বাস।

শুধু পশু নয়, দুঃস্থ মানুষকেও সাহায্য করেন নীলাঞ্জনা। কিছুদিন আগেই তিনি এক বৃদ্ধা ভিখারিকে পোশাক দিয়ে বৃদ্ধাশ্রমে ভরতি করে দেন। অন্য ঘটনায় মাথায় ঘা হওয়া এক পাগলকে দু’দিন চিকিৎসাও করান তিনি। যদিও পরে ওই পাগল ব্যক্তি বেপাত্তা হয়ে যায়।

দীপাবলিতে দুঃস্থ পরিবারদের আতসবাজি, মোমবাতি, খাবার এবং পোশাক বিতরণও করেন তিনি।

নীলাঞ্জনা বিশ্বাস বলেন, ঋণ করেও রাস্তার কুকুরদের খাইয়ে চলেছি। কিন্তু আমি ডায়াবেটিক ও হার্টের রোগী। ভবিষ্যতে এদের কী হবে তাই নিয়ে আমি চিন্তিত। কল্যাণী পৌরসভার কাছে কুকুরগুলির পুনর্বাসনের আবেদন করে সাড়া পাইনি। যদি পৌরসভা এদের জন্য কিছু করে তবে শান্তি পাব।



খেলাধুলার খবর »
খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


জুমআর দিনের যে ১টি আমলে হাজার হাজার বছরের নামাজ-রোজার সাওয়াব মেলে

জুমআর-দিনের-যে-১টি-আমলে-হাজার-হাজার-বছরের-নামাজ-রোজার-সাওয়াব-মেলে

নাম রাখার ব্যাপারে যে নির্দেশনা দিয়েছে ইসলাম

নাম-রাখার-ব্যাপারে-যে-নির্দেশনা-দিয়েছে-ইসলাম

মহান আল্লাহ তাআলা যেসব কাজে প্রতিযোগিতা করতে বলেছেন

মহান-আল্লাহ-তাআলা-যেসব-কাজে-প্রতিযোগিতা-করতে-বলেছেন ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


বাজারে নতুন স্মার্ট সিলিং ফ্যান, বাতাস দেয়ার সঙ্গে তাড়াবে মশা!

বাজারে-নতুন-স্মার্ট-সিলিং-ফ্যান-বাতাস-দেয়ার-সঙ্গে-তাড়াবে-মশা-

আপন মা নারাজ, পুত্রবধূকে বাঁচাতে নিজের কিডনি দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন শাশুড়ি

আপন-মা-নারাজ-পুত্রবধূকে-বাঁচাতে-নিজের-কিডনি-দিয়ে-দৃষ্টান্ত-স্থাপন-করলেন-শাশুড়ি

৪ বছর প্রেম শেষে ৩০০ বছর বয়সী জলদস্যু ভূতকে বিয়ে!

৪-বছর-প্রেম-শেষে-৩০০-বছর-বয়সী-জলদস্যু-ভূতকে-বিয়ে- এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


ম্যাচের আগের দিন হোটেল ভাড়াও দিতে পারছে না জিম্বাবুয়ে!

অবিশ্বাস্য ব্যাটিং! ২৩ চার, ২৮ ছক্কায় ৪০৮ রান!

আবার গ্লাস ভাঙলে, ওরা আমাকে মেরেই ফেলবে: রশিদ খান

আফগানদের বিপক্ষে বাদ লেগ স্পিনার বিপ্লব! কপাল খুলল যার

পাঠকই লেখক


শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি যে, এই গ্রামের সবাই দৃষ্টিহীন! কারণ...

শুনতে-অবাক-লাগলেও-এটাই-সত্যি-যে-এই-গ্রামের-সবাই-দৃষ্টিহীন--কারণ

ছাগল চুরির ৪১ বছর পর ধরা পড়লো চোর!

ছাগল-চুরির-৪১-বছর-পর-ধরা-পড়লো-চোর-

মহাকাশে সিমেন্ট গুলছে নাসার বিজ্ঞানিরা, চাঁদে বানানো হবে বাড়ি

মহাকাশে-সিমেন্ট-গুলছে-নাসার-বিজ্ঞানিরা-চাঁদে-বানানো-হবে-বাড়ি পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ