ডাক্তার-নার্স মারপিট, মারা গেল রোগী

০২:৩৯:৩৭ মঙ্গলবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সর্বশেষ সংবাদ :

     • কোহলিকে টপকে যাওয়ার অপেক্ষায় মাহমুদউল্লাহ     • আফগান ক্রিকেটের বদলে যাওয়ার গল্প শোনালেন অধিনায়ক রশিদ খান     • নরওয়েতে প্রতিদিন গড়ে ৮ জন ভিন্নধর্মী লোক মুসলমান হচ্ছেন     • দুই সন্তান নিয়ে ফুটপাতে রাতযাপনকারী অসহায় শেফালীকে চাকরি দিলেন সাঈদ খোকন     • সাইফউদ্দিনের মন্তব্যে বিরক্ত হয়ে কোচ ডমিঙ্গো যা বললেন...     • পাক-সেনার হা'মলা থেকে বাঁচতে সীমান্তে বাংকার বানাচ্ছে ভারত     • আজ পৃথিবীর সর্বত্র দিন-রাত সমান     • মাত্র সাড়ে তিন সেকেন্ডে বো'মার আ'ঘা'তে উড়ে গেল চীনের বিরাট সেতু     • আজ ইতিহাস গড়ার সামনে বাংলাদেশ     • ফাইনাল ম্যাচে দারুণ এক রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন মুশফিক

শনিবার, ২৮ অক্টোবর, ২০১৭, ০১:১২:৫৯

ডাক্তার-নার্স মারপিট, মারা গেল রোগী

ডাক্তার-নার্স মারপিট, মারা গেল রোগী

জয়পুরহাট থেকে : জয়পুরহাটের অসুস্থ মাহিলা বেওয়াকে (৮০) ভর্তি করা হয়েছিল বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। নাতিসহ তার অপরাধ- তিনি তার শরীরে রক্ত দেওয়া বন্ধ হয়ে গেলে নিডলটি খুলে দেওয়ার অনুরোধ করেছিলেন।

আর এতে ক্রুদ্ধ হয়ে কর্তব্যরত ইন্টার্নি ডাক্তার, নার্সসহ তাদের সহযোগীরা তাদের বেধড়ক মারপিট করে হাসপাতাল থেকে বের করে দেয়। এরপর মাহিলার মৃত্যু ঘটে। এ ঘটনাটি ঘটেছে গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে।

জানা গেছে, ইন্টার্নি ডাক্তার ও নার্সদের মারপিটে শুধু রোগীই মারা যাননি, তার সঙ্গে আসা নাতি ও ছেলে রক্তাক্ত জখম হয়ে জয়পুরহাটের হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

মারপিটের শিকার হওয়া জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে গুরুতর আহত নাতি রুম্মান রহমান শান্ত (২০) জানান, জয়পুরহাট সদর উপজেলার পুরানাপৈল ইউনিয়নের তুলাট গ্রামের গাজিউর হক তার মা মাহিলা বেওয়াকে অসুস্থ অবস্থায় জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করেন।

২৩ অক্টোবর তাকে বগুড়ার শহীদ জিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে তার চিকিৎসা চলছিল। বৃহস্পতিবার রাতে চিকিৎসাধীন মাহিলা বেওয়াকে রক্ত দেওয়া হচ্ছিল। রাত আনুমানিক সাড়ে ৮টার দিকে রোগীর দেহে রক্ত দেওয়া শেষ হলে রোগী এবং তার নাতি কর্তব্যরত নার্সকে রক্তের সঞ্চালন লাইনটি বন্ধ করে দিতে বলেন।

২০-২৫ মিনিট পার হয়ে গেলেও নিডলটি না খোলায় ওই লাইনে শরীর থেকে রক্ত বের হতে শুরু করলে শান্ত দৌড়ে গিয়ে কর্তব্যরত ডাক্তার ও নার্সকে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়ার অনুরোধ করেন। তখন ডাক্তার-নার্সরা শান্তকে কলার ধরে টানতে টানতে একটি ঘরে নিয়ে বেদম মারপিট করতে থাকেন।

এ সময় রুম্মানের পিতা গাজিউল হক সেখানে গেলে তাকেও তারা একটি ঘরে আটকে মারপিট করেন। এতে তারা দুজনই রক্তাক্ত জখম হন। একইভাবে রোগীকেও মারপিট করা হয়। এ সময় ডাক্তারদের ডাকে বাইরে থেকে তাদের লোকজন এসেও মারপিটে অংশ নেয়। পরে পুলিশ খবর পেয়ে সেখানে আসে, তবে তারা কোনো ব্যবস্থা না নিয়ে ফিরে যায়।

রাত আনুমানিক ২টার দিকে ডাক্তাররা রক্তাক্ত রুম্মান ও তার পিতাকে হাসপাতাল থেকে বের করে একটি সিএনজি ভাড়া করে তাদের জয়পুরহাট পাঠিয়ে দেয়। পাশপাশি রুম্মানের দাদি মাহিলা বেওয়াকে ছাড়পত্র দিয়ে বের করে দেওয়া হয়। এরপর জয়পুরহাটে ফেরার পথেই তিনি মারা যান। বাংলাদেশ প্রতিদিন  
এমটিনিউজ/এসবি



খেলাধুলার খবর »
খেলাধুলার সকল খবর »

ইসলাম


মদিনা শরিফের সবচেয়ে প্রবীণ ইমাম ও খতিব শায়খ হুজাইফি অসুস্থ

মদিনা-শরিফের-সবচেয়ে-প্রবীণ-ইমাম-ও-খতিব-শায়খ-হুজাইফি-অসুস্থ

ঘুম না আসলে যে দোয়া পড়তে বলেছেন প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম

ঘুম-না-আসলে-যে-দোয়া-পড়তে-বলেছেন-প্রিয়-নবি-সাল্লাল্লাহু-আলাইহি-ওয়া-সাল্লাম

পবিত্র ইসলামের সুমহান আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে বৌদ্ধ ধর্ম ত্যাগ করে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ

পবিত্র-ইসলামের-সুমহান-আদর্শে-অনুপ্রাণিত-হয়ে-বৌদ্ধ-ধর্ম-ত্যাগ-করে-ইসলাম-ধর্ম-গ্রহণ ইসলাম সকল খবর »

এক্সক্লুসিভ নিউজ


অবাক ঘটনা মেহেরপুরে, বিয়ে করতে কনে গেলেন বরের বাড়ি!

অবাক-ঘটনা-মেহেরপুরে-বিয়ে-করতে-কনে-গেলেন-বরের-বাড়ি-

চিনে নিন এই ব্যক্তিকে, যিনি ১০০ স্ত্রীর স্বামী ও ৫০০ সন্তানের বাবা!

চিনে-নিন-এই-ব্যক্তিকে-যিনি-১০০-স্ত্রীর-স্বামী-ও-৫০০-সন্তানের-বাবা-

আপন মা নারাজ, পুত্রবধূকে বাঁচাতে নিজের কিডনি দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন শাশুড়ি

আপন-মা-নারাজ-পুত্রবধূকে-বাঁচাতে-নিজের-কিডনি-দিয়ে-দৃষ্টান্ত-স্থাপন-করলেন-শাশুড়ি এক্সক্লুসিভ সকল খবর »

সর্বাধিক পঠিত


বড় চমক দিয়ে আফগানদের বিপক্ষে ফাইনাল ম্যাচের স্কোয়াড ঘোষণা করল বাংলাদেশ

ফাইনাল ম্যাচে শান্তর বদলে মাঠে নামবে তামিম ইকবাল!

ঘুম না আসলে যে দোয়া পড়তে বলেছেন প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম

যশোরে বাচ্চাকে মারধর করায় দলবল নিয়ে হনুমানদের থানা ঘেরাও

পাঠকই লেখক


শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি যে, এই গ্রামের সবাই দৃষ্টিহীন! কারণ...

শুনতে-অবাক-লাগলেও-এটাই-সত্যি-যে-এই-গ্রামের-সবাই-দৃষ্টিহীন--কারণ

ছাগল চুরির ৪১ বছর পর ধরা পড়লো চোর!

ছাগল-চুরির-৪১-বছর-পর-ধরা-পড়লো-চোর-

মহাকাশে সিমেন্ট গুলছে নাসার বিজ্ঞানিরা, চাঁদে বানানো হবে বাড়ি

মহাকাশে-সিমেন্ট-গুলছে-নাসার-বিজ্ঞানিরা-চাঁদে-বানানো-হবে-বাড়ি পাঠকই সকল খবর »

জেলার খবর


ঢাকা ফরিদপুর
গাজীপুর গোপালগঞ্জ
জামালপুর কিশোরগঞ্জ
মাদারীপুর মানিকগঞ্জ
মুন্সিগঞ্জ ময়মনসিংহ
নারায়ণগঞ্জ নরসিংদী
নেত্রকোনা রাজবাড়ী
শরীয়তপুর শেরপুর
টাঙ্গাইল ব্রাহ্মণবাড়িয়া
কুমিল্লা চাঁদপুর
লক্ষ্মীপুর নোয়াখালী
ফেনী চট্টগ্রাম
খাগড়াছড়ি রাঙ্গামাটি
বান্দরবান কক্সবাজার
বরগুনা বরিশাল
ভোলা ঝালকাঠি
পটুয়াখালী পিরোজপুর
বাগেরহাট চুয়াডাঙ্গা
যশোর ঝিনাইদহ
খুলনা মেহেরপুর
নড়াইল নওগাঁ
নাটোর গাইবান্ধা
রংপুর সিলেট
মৌলভীবাজার হবিগঞ্জ
নীলফামারী দিনাজপুর
কুড়িগ্রাম লালমনিরহাট
পঞ্চগড় ঠাকুরগাঁ
সুনামগঞ্জ কুষ্টিয়া
মাগুরা সাতক্ষীরা
বগুড়া জয়পুরহাট
চাঁপাই নবাবগঞ্জ পাবনা
রাজশাহী সিরাজগঞ্জ