রবিবার, ০৯ জানুয়ারী, ২০২২, ০৩:৫৫:২৯

নৌকা প্রতীকে নির্বাচনে পরাজয়ের পর সাবেক চেয়ারম্যানের কাণ্ড! এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি

নৌকা প্রতীকে নির্বাচনে পরাজয়ের পর সাবেক চেয়ারম্যানের কাণ্ড! এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি

এমটিনিউজ২৪ডেস্ক :  দায়িত্ব পালন করার সময় চেয়ারম্যান হিসেবে বসার জন্য একটি বিশেষ চেয়ার তৈরি করেছিলেন। এবার নির্বাচনে অংশ নিয়ে তিনি পরাজিত হয়েছেন। হেরে যাওয়ার পর সেই চেয়ারটি বাড়িতে নিয়ে গেলেন আওয়ামী লীগ দলীয় সাবেক চেয়ারম্যান। এ নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

আওয়ামী লীগ মনোনীত ওই চেয়ারম্যানের নাম নায়েব আলী শেখ। তিনি রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছিলেন। এবারের নির্বাচনে তিনি নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করে পরাজিত হয়েছেন। তার বাড়ি বালিয়াকান্দি উপজেলা শহরের বালিয়াকান্দি গ্রামের ওয়াপদা এলাকায়। নায়েব আলী বালিয়াকান্দি উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি।

ইউনিয়ন পরিষদের সচিব রোকনুজ্জামান বলেন, ওই চেয়ারটি তৈরি করার সময় আমি এখানে কর্মরত ছিলাম না। ৩ জানুয়ারি বিকেলে চৌকিদারের মাধ্যমে তিনি ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয় থেকে চেয়ারটি নিয়ে গেছেন। তবে শুনেছি, সাবেক চেয়ারম্যান নাকি নিজের টাকায় চেয়ারটি তৈরি করেছিলেন।

চেয়ার নিয়ে যাওয়ার সত্যতা স্বীকার করেছেন বালিয়াকান্দি ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান নায়েব আলী শেখ। তিনি বলেন, আমি ওই চেয়ারটি আমার নিজের টাকায় তৈরি করেছিলাম। আর ইউনিয়ন পরিষদের টাকায় যেসব চেয়ার তৈরি করা হয়েছিল তা তালিকায় লিপিবদ্ধ করা আছে। আমি চেয়ারম্যানের স্মৃতি ধরে রাখার জন্য চেয়ারটি বাড়িতে নিয়ে এসেছি।

বর্তমান চেয়ারম্যান আলমগীর বিশ্বাস বলেন, বিগত চেয়ারম্যান আমাকে দায়িত্ব বুঝিয়ে দেননি। আমি শপথ পাঠের পর বাড়ি থেকে চেয়ার নিয়ে এসেছি। ওই চেয়ারটি ইউনিয়ন পরিষদ থেকে করা হয়েছিল।

বালিয়াকান্দি উপজেলার (ভারপ্রাপ্ত) নির্বাহী কর্মকর্তা হাসিবুল হাসান বলেন, সরকারিভাবে ক্রয় করার আসবাবপত্রের তালিকা লিপিবদ্ধ করা থাকে। সরকারি চেয়ার বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। আর কেউ যদি ব্যক্তিগতভাবে তৈরি করে তবে তা বাড়িতে নিয়ে যেতে পারেন। কিন্তু ওই চেয়ারটি সরকারি ভাবে ক্রয় করা কি না, তা জানা যায়নি। এ বিষয়ে খোঁজখবর করা হবে।

এমটিনিউজ২৪.কম এর খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) এ ডান দিকের স্টার বাটনে ক্লিক করে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি ফলো করুন! Follow করুন এমটিনিউজ২৪ গুগল নিউজ