বৃহস্পতিবার, ১২ মে, ২০২২, ১০:২৮:১০

বোরকা পরে কাউকে নির্জন স্থানে ডেকে যা করতেন!

বোরকা পরে কাউকে নির্জন স্থানে ডেকে যা করতেন!

এমটি নিউজ ডেস্ক : বোরকা পরে নারী সেজে অভিনব কায়দায় ছিনতাই চক্রের এক সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ছিনতাইয়ে সাহায্যকারী রনি হোসেন (৩৮) নামের এক যুবক পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে পালিয়ে যান।

বুধবার (১১ মে) দিনগত রাত ২টার দিকে নাটোরের বনবেলঘড়িয়া পশ্চিম বাইপাস এলাকা থেকে মামুন নামের ওই ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার মামুন আলী (৪২) বনবেলঘরিয়া বাইপাস এলাকার মৃত বাহার আলীর ছেলে।

পুলিশ জানায়, বোরকা পরে নারী সেজে কাউকে নির্জন স্থানে ডেকে নিয়ে ধারালো অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ছিনতাই করা তাদের পেশা। মামুনের বিরুদ্ধে নাটোর সদর থানায় ছিনতাই ও চুরির চারটি মামলা রয়েছে।

নাটোর সদর থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) সাখাওয়াত হোসেন জানান, বুধবার রাত ২টার দিকে সময় তার নেতৃত্বে পুলিশের একটি টহল টিম নাটোর-রাজশাহী মহাসড়কের মহিলা কলেজ গেট এলাকায় দায়িত্ব পালন করছিল। 

এ সময় কলেজের সামনে নির্জন রাস্তায় বোরকা পরিহিত এক নারীকে একজন মোটরসাইকেল আরোহীর সঙ্গে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে কাছে যান। তারা কোথায় যাবেন জানতে চাইলে পুলিশ দেখে মোটরসাইকেল চালক দৌড়ে পালিয়ে যায়। তখন বোরকায় মুখ ঢাকা ওই নারীকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তার কণ্ঠস্বর শুনে পুলিশের সন্দেহ হয়।

বোরকার মুখ খুলতে বললে তিনি তর্ক শুরু করেন। হঠাৎ পায়ের জুতা দেখে পুলিশ বুঝতে পারে তিনি নারী নন পুরুষ। এ সময় তার শরীর তল্লাশি করে একটি ধারালো চাকু ও রডের পাইপ উদ্ধার করা হয়।

নাটোর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাছিম আহম্মেদ বলেন, নারীরূপী মামুনের ডাকে যারাই সাড়া দিতেন তারাই বিপদে পড়েছেন। অভিনব এ ছিনতাইকাজে জড়িত পুরো চক্রকে ধরতে অভিযান শুরু করেছে পুলিশ।

এমটিনিউজ২৪.কম এর খবর পেতে গুগল নিউজ (Google News) এ ডান দিকের স্টার বাটনে ক্লিক করে গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি ফলো করুন! Follow করুন এমটিনিউজ২৪ গুগল নিউজ